CC News

শাজাহানপুরে গণজাগরণের গাড়িবহরে বোমা নিক্ষেপ

 
 

Gonoবগুড়া: বগুড়ায় গণজাগরণের গাড়িবহরে ককটেল ও পেট্রোল বোমা নিক্ষেপ করেছে দুর্বৃত্তরা। এতে কেন্দ্রীয় গণজাগরণ মঞ্চের কর্মী তানভিরসহ আহত হয়েছেন ২ জন। শুক্রবার রাত সাড়ে সাতটার দিকে ঢাকা-রংপুর মহাসড়কের শেরপুর উপজেলার শেরুয়া বটতলা ও শাজাহানপুরে এ হামলা হয়।

বহরে থাকা মঞ্চকর্মীরা জানান, রাত সাড়ে সাতটার দিকে শেরপুরের শেরুয়া বটতলায় দুর্বৃত্তরা গাড়ি বহর লক্ষ্য করে পেট্রোল বোমা, ককটেল ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এসময় কর্মীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পরে পুলিশি প্রহরায় গাড়িবহর ঢাকা-বগুড়া মহাসড়ক ধরে বগুড়া শহরের দিকে রওনা দেয়।

এর মধ্যে রাত সোয়া ৮টার দিকে শাজাহানপুর উপজেলার সাজাপুর ফুলতলা এলাকায় পৌঁছলে আবারো হামলার শিকার হয় গাড়িবহর। দুর্বৃত্তরা গাড়িবহর লক্ষ্য করে ৬-৭টি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায়। এসময় পুলিশ দুর্বৃত্তদের লক্ষ্য করে ৩ রাউন্ড রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে।

রাত সাড়ে ৮টার দিকে গাড়িবহর বগুড়া শহরের সাতমাথায় পৌঁছে। সেখানে গণজাগরণ মঞ্চের সমাবেশে যোগ দেন কেন্দ্রীয় কর্মীরা।

সমাবেশে গণজাগরণ মঞ্চের কেন্দ্রীয় মুখপাত্র ডা. ইমরান এইচ সরকার গাড়িবহরে হামলার ঘটনায় স্বাধীনতাবিরোধীদের দায়ি করে বলেন, ‘জামায়াত-শিবির রাজনীতিতে ধর্মের নামে মানুষ হত্যা করছে। সনাতন ধর্মের মানুষকে হত্যা করছে। আমাদের ওপর বোমা হামালা, পেট্রোল বোমা হামলা করে রুখে দেয়ার চেষ্টা করেছে। কিন্তু তারা জানেনা আমরা যে কোনো পরিস্থিতিতে এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় ঘরের বাইরে আসতে শিখেছি। আন্দোলন করতে শিখেছি। এ আন্দোলন সফল না করে ঘরে ফিরবো না।’

বগুড়া গণজাগরণ মঞ্চের সমন্বয়ক মাছুদার রহমান হেলালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন- ছাত্রমৈত্রীর কেন্দ্রীয় সভাপতি শামীম আরা শাওন, গণজাগরণ মঞ্চের কর্মী লাকী আক্তার, নাট্যজন তৌফিক হাসান ময়না, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট বগুড়ার সাধারণ সম্পাদক এবিএম জিয়াউল হক বাবলা, অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম মন্টু, পৌর কাউন্সিলর আমিনুল ফরিদ, আমিনুল ইসলাম ডাবলু, জেএম রউফ, আহমেদুর রহমান ডালিম, ইসমাইল হোসেন দুখু, কিবরিয়া হোসেনসহ কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় গণজাগরণ মঞ্চের নেতাকর্মীরা। সমাবেশে বগুড়ার প্রগতিশীল সামাজিক, সাংস্কৃতিক, পেশাজীবী, ছাত্র ও রাজনৈতিক সংগঠনের নেতারা অংশ নেয়।

উল্লেখ্য, বগুড়ায় সমাবেশ শেষে শনিবার সকালে রংপুর অভিমুখে যাত্রা করবে গণজাগরণ মঞ্চের কর্মীরা। এ রোড মার্চে তারা দিনাজপুর ও ঠাকুগাঁও সাম্প্রদায়িক হামলার ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন করবে।

Print Friendly, PDF & Email