CC News

বগুড়ায় যুবদল কর্মীকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা

 
 

বগুড়া: শহরে যুবদল কর্মী হযরত আলীকে জনসম্মুখে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। খুনের পর নির্বিঘ্নে পালিয়েও যায় তারা। স্থানীয়রা সব দেখলেও ভয়ে দুর্বৃত্তদেরকে বাধা দেয়ার সাহস পায়নি।

রবিবার দুপুরে শহরের নিশিন্দারা এলাকায় পৌরসভার ১৬ নম্বর ওয়ার্ড কমিশনারের কার্যালয়ে সামনে এই খুন হয়। হযরত আলী তার রাজনৈতিক জীবনের শুরুতে জামায়াতের ছাত্র সংগঠন ইসলামী ছাত্র শিবিরের রাজনীতিতে জড়িত ছিলেন। পরে তিনি যুবদলে যোগ দেন। তিনি বালু ব্যবসার সঙ্গে জড়িত ছিলেন। তার বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা আছে। সম্প্রতি তিনি জামিনে মুক্তি পেয়েছেন।

আধিপত্য বিস্তার ও বালু ব্যবসা নিয়ে পূর্ববিরোধকে কেন্দ্র করে এই হত্যা হয়েছে বলে ধারণা করছে পুলিশ। খুনিদেরকে শনাক্ত করে তাদেরকে বিচারের আওতায় আনার চেষ্টা চলছে বলেও জানিয়েছে বাহিনীটি।

স্থানীয় লোকজন জানায়, হযরত আলী শহরের ১৬ নম্বর নিশিন্দারা ওয়ার্ড কাউন্সিলর অফিসের সামনে দিয়ে মোটরসাইকেলে করে যাচ্ছিলেন। এ সময় প্রতিপক্ষের লোকজন তার মোটরসাইকেলের গতিরোধ করে। এরপর তারা হযরত আলীকে লাঠি দিয়ে পেটায়। এর পাশাপাশি কুপিয়ে মৃত্যু নিশ্চিত করে চলে যায় তারা।

এই হত্যায় কারা অংশ নিয়েছে-সে বিষয়ে সুনির্দিষ্ট তথ্য পাওয়া যাচ্ছে না। স্থানীয় যারা এই হত্যার ঘটনা দেখেছেন, তারা খুনিদেরকে চিনেছেন কি না, সে বিষয়ে মুখ খুলছেন না।

বগুড়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এমদাদ হোসেন জানান, এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে হত্যাকান্ডটি ঘটে থাকতে পারে। আসামিদের ধরতে অভিযান চলছে।

Print Friendly, PDF & Email