CC News

কৃত্রিম হৃৎপিণ্ড তৈরিতে নতুন এক ধাপ

 
 

স্বাস্থ্য ডেস্ক: প্রতি বছর বিশ্বে প্রায় ২ কোটি ৬০ লাখ মানুষের হার্টফেল হয়। এসব ক্ষেত্রে হার্টদাতার শরণাপন্ন হওয়া ছাড়া সাধারণত ভিন্ন কোনো উপায় থাকে না। কিন্তু এত বিরাটসংখ্যক লোকের জন্য সময়মতো দাতা খুঁজে পাওয়া বেশ কঠিন। দাতা খুঁজে পাওয়ার আগ পর্যন্ত একজন হৃদরোগীর জীবন বাঁচাতে কৃত্রিম হৃৎপিণ্ডের ভূমিকা অপরিহার্য।

বিজ্ঞানীরা বেশ কিছুদিন ধরেই কৃত্রিম হৃৎপিণ্ড তৈরির চেষ্টা করে আসছেন। এ পর্যন্ত তৈরি করা ডিজাইনগুলোর বেশিরভাগই অবশ্য ওজনে বেশ ভারী, যা শরীরের টিস্যুতে প্রতিস্থাপন করা কষ্টসাধ্য। প্রচলিত ডিজাইনগুলোর বিভিন্ন যান্ত্রিক অংশে ত্রুটি দেখা দেয়ার সম্ভাবনা থাকে, যা রোগীর জন্য সম্ভাব্য বিপদের কারণ হতে পারে। এ সমস্যার বিকল্প একটি সমাধান নিয়ে এগিয়ে এসেছেন সুইজারল্যান্ডের ইটিএইচ জুরিখ (ETH Zürich) বিশ্ববিদ্যালয়ের পিএইচডি গবেষক নিকোলাস কোরস।

নতুন কোনো ডিজাইন তৈরির পরিবর্তে চলমান সবচেয়ে সফল ডিজাইনটি অর্থাৎ মানুষের আসল হৃৎপিণ্ডকেই অনুসরণ করার পথ বেছে নিয়েছেন তিনি। এটি করতে গিয়ে হৃৎপিণ্ডের ডিজাইনে আলাদা আলাদা বিভিন্ন অংশ জোড়া দেয়ার পরিবর্তে তিনি একটি থ্রিডি প্রিন্টারের সাহায্যে সিলিকনের হার্ট প্রিন্ট করেছেন। ছোট ছোট যন্ত্রাংশ জোড়া দেয়ার বদলে একটিমাত্র টুকরো দিয়ে পুরো হৃৎপিণ্ডটি তৈরি হওয়ায় এতে যান্ত্রিক ত্রুটি দেখা দেয়ার সম্ভাবনা অনেক কম। থ্রিডি প্রিন্টার দিয়ে প্রিন্ট করার একটি বিশেষ সুবিধা হচ্ছে, এতে প্রত্যেক রোগীর প্রয়োজন অনুযায়ী ডিজাইন কাস্টমাইজ করা সম্ভব।

একটি সত্যিকারের মানব হৃৎপিণ্ডের মতোই সিলিকনের তৈরি এই কৃত্রিম হৃৎপিণ্ডে ডান ও বাম অলিন্দ রয়েছে। এছাড়াও আছে একটি অতিরিক্ত প্রকোষ্ঠ, যেটি একটি পাম্পের সাহায্যে হৃৎপিণ্ডটিকে চালু রাখে। বায়ুর চাপে এ তৃতীয় প্রকোষ্ঠটি সংকুচিত ও প্রসারিত হয়, যা অলিন্দের ভিতর দিয়ে রক্ত প্রবাহকে চালু রাখে।

পুরো প্রক্রিয়াটি পরীক্ষা করার জন্য মানুষের রক্তের সমান সান্দ্রতাসম্পন্ন (viscosity) একটি তরল ব্যবহার করা হয়েছে। বর্তমানে এটি ৩০০০ বিট পর্যন্ত অর্থাৎ ৩০-৪৫ মিনিট সফলভাবে টিকে থাকতে সক্ষম হয়েছে। এর ওজন ৩৯০ গ্রাম এবং আয়তন ৬৭৯ ঘন সেন্টিমিটার। পুরুষদের হৃৎপিণ্ডের স্বাভাবিক গড় ওজন ৩০০ গ্রাম, আর নারীদের ক্ষেত্রে ২৪৫ গ্রাম। যদিও এটি আপাতত মানুষের হৃৎপিণ্ডের চেয়ে সামান্য ভারী, তবে আয়তনে কিন্তু প্রায় সমান।

হৃৎপিণ্ডটির নির্মাতা নিকোলাসের মতে, এটি এখনো ব্যবহার উপযোগী নয়, এখনো সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের পর্যায়ে রয়েছে। তবে অভিনব এই ডিজাইনের মাধ্যমে কৃত্রিম হৃৎপিণ্ড তৈরির গবেষণায় একটি নতুন দিক উন্মোচিত হলো। আর্টিফিশিয়াল অর্গানস নামক পিয়ার রিভিওড একটি জার্নালে এই গবেষণার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে।

ইটিএইচ জুরিখ বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট অবলম্বনে

Print Friendly, PDF & Email