CC News

খেতাব হারানো ‘মিস বাংলাদেশ’ এভ্রিলের পরকীয়াও ফাঁস

 
 

বিনোদন ডেস্ক: ‘মিস ওর্য়াল্ড বাংলাদেশ’ বিজয়ী জান্নাতুল নাঈমের খেতাব অবশেষে বাতিল করা হয়েছে। সোমবার বিকালে অন্তর শোবিজের চেয়ারম্যান স্বপন চৌধুরী এই তথ্য জানান। তিনি আরো বলেন, আগামীকাল মঙ্গবার নতুন বিজয়ীর নাম ঘোষণা করা হবে।

গত ২৯ সেপ্টেম্বর বসুন্ধরা কনভেনশন সেন্টারে চট্টগ্রামের মেয়ে জান্নাতুল নাঈমকে ‘মিস ওর্য়াল্ড বাংলাদেশ’ ঘোষণা করা হয়। তবে বিচারকদের মধ্য থেকে অভিযোগ করা হয়, তাদের রায় পাল্টে আয়োজকদের পছন্দে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হয়েছে জান্নাতুল নাঈমকে। এরপর থেকে তাকে ঘিরে নানা প্রশ্ন তৈরি হয়।

‘মিস ওয়ার্ল্ড’ প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ার প্রধান শর্তগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো- প্রতিযোগীকে অবিবাহিত হতে হবে। কিন্তু এভ্রিল তার বিয়ের বিষয়টি গোপন রেখে প্রতিযোগিতায় অংশ নেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

কাবিননামা অনুযায়ী ২০১৩ সালের ২১ মার্চ চট্টগ্রামের চন্দনাইশ পৌর এলাকার বাসিন্দা ও কাপড় ব্যবসায়ী মোহাম্মদ মুনজুর উদ্দিনের সঙ্গে এভ্রিলের বিয়ে হয়। কিন্তু বিয়ের দুই মাসের মাথায় ১১ জুন বিবাহবিচ্ছেদ হয় তাদের।

এদিকে, বিয়ে ও কাবিননামা ফাঁসের পর আরো চাঞ্চল্যকর এক তথ্য এসেছে মিডিয়া কর্মীদের কাছে। চট্টগ্রামের একজন প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ীর সঙ্গে এভ্রিলের পরকীয়া রয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ওই ব্যবসায়ীর স্ত্রী নিজেই। এ নিয়ে তাদের সংসারে গত ১ বছর ধরেই ঝামেলা চলছে। উল্লেখ্য, প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী একজন ৫০ ঊর্ধ্ব ব্যক্তি এবং পোশাক রপ্তানিকারক।

এদিকে, মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশের গ্র্যান্ড ফিনালেতে বিজয়ী নির্বাচন নিয়ে চলা বিতর্কের বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে স্বপন চৌধুরী বলেন, এ বিষয়টি নিয়ে আগামী বুধবার সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে সবকিছু পরিষ্কার করব।

জান্নাতুল নাঈমের বাড়ি চট্টগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার ৫ নম্বর বরমা ইউনিয়নের সেরন্দি গ্রামের রাউলিবাগ এলাকায়। তার বাবা তাহের মিয়া ও মা রেজিয়া বেগম।

গত শুক্রবার রাতে ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হন জান্নাতুল নাঈম এভ্রিল। তবে তার নাম ঘোষণার পর নানা মহল থেকে বিতর্ক ওঠে।

Print Friendly, PDF & Email