CC News

পাখি রক্ষায় চিরিরবন্দরে গাছে গাছে কলস

 
 

চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: পাখির নিরাপদ আবাসস্থল গড়ে তোলার লক্ষে এবার দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলায় গাছে গাছে কলস লাগানো হয়েছে। ১৩ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার চিরিরবন্দর উপজেলা প্রশাসনের উদ্দ্যোগে প্রশাসনিক ভবন চত্বরে গাছে গাছে মাটির কলস বেধে দেওয়া হয়।
এসময় উপস্থিত ছিলেন চিরির বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ গোলাম রব্বানী, উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা মেজবাউল করিম।
চিরিরবন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গোলাম রব্বানী জানান, পাখি প্রকৃতির অংশ। প্রাকৃতিক ভারসাম্য রক্ষায় পাখির অপরিসীম গুরত্ব। তাই পাখি রক্ষা করা আমাদের সকলের কর্তব্য। এজন্যে উপজেলা প্রশাসনের উদ্দ্যোগে গাছে গাছে কলস লাগানোর এ কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে।
পার্শ্ববর্তী উপজেলা সৈয়দপুরে পাখি ও প্রকৃতি সুরক্ষায় কাজ করা সেতুবন্ধন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের প্রশংসা করে তিনি আরো বলেন, ‘ইতিমধ্যে এই সংগঠনটির কার্যকলাপ দেশজুড়ে আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। এই সংগঠনটি পাখি ও প্রকৃতি সুরক্ষায় বিশেষ অবদান রেখে চলছে। সংগঠনটির এই স্বেচ্ছাসেবামূলক কার্যক্রম বেশ প্রশংসনীয় ও অনুকরণীয়।’
পরে পাখি ও প্রকৃতি নিয়ে কাজ করা স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সেতুবন্ধনের সভাপতি আলমগীর হোসেনের নেতৃত্বে জনসচেতনতা সৃষ্টিতে বিভিন্ন শ্লোগান সংবলিত বিলবোর্ড উপজেলার বিভিন্ন স্থানে লাগানো হয়। এসময় অন্যান্যদের মধ্যে আরো উপস্থিত ছিলেন সাংবাদিক ফজলুর রহমান, মোহাম্মদ মানিক, মাহফুজুর ইসলাম আসাদ, সেতুবন্ধনের অর্থ সম্পাদক মোরসালিন সুমন, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক আহসান হাবীব জনি, আসাদ, শফিকুল ইসলাম, মাজিদুল ইসলাম প্রমুখ।
উল্লেখ্য, পাখি ও প্রকৃতি সুরক্ষায় ২০১৩ সাল হতে নীলফামারীর সৈয়দপুরে গাছে গাছে কলস লাগিয়ে আসছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সেতুবন্ধন। পাশাপাশি জনসচেতনতা সৃষ্টিতে লিফলেট বিতরণ, সাইকেল শোভাযাত্রা, আলোচনা সভা, উঠান বৈঠক সহ স্কুলে স্কুলে ক্যাম্পিং করে আসছে পাখি ও প্রকৃতি বাঁচানোর প্রত্যয়ে গড়ে উঠা সংগঠনটি।

Print Friendly, PDF & Email