CC News

কলেজ ছাত্রীর আপত্তিকর ছবি সামাজিক মাধ্যমে

 
 

সিসি ডেস্ক, ২২ ফেব্রুয়ারী: এবার এক কলেজ ছাত্রীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার অভিযোগ উঠেছে শরীয়তপুরে। অভিযুক্ত আশরাফুল ইসলাম মিঠুন জাজিরা উপজেলা সেচ্ছাসেবকলীগের সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক। তাকে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করা হলেও এখনো মামলা হয়নি।
বিদ্যালয়ে আসা-যাওয়ার পথে ওই ছাত্রীকে উত্যক্ত করত জাজিরা উপজেলা সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা মিঠুন। এক পর্যায়ে ভয়ে প্রেমের প্রস্তাবে রাজি হয় মেয়েটি। পরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে মেয়েটির সঙ্গে অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ছবি মোবাইলে ধারন করে মিঠুন।
মিঠুনের হাত থেকে বাঁচতে গত নভেম্বরে মেয়েটিকে বিয়ে দেয় পরিবার। বিয়ের পর স্বামী ও শশুরবাড়ীর লোকজনকে মেয়েটির আপত্তিকর ছবি দেখায় মিঠুন। ১৫ ফেব্রুয়ারি ছবিগুলো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয় সে।
লোকলজ্জা আর সামাজিক চাপে বাড়ির বাইরে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে মেয়েটি। বন্ধ হয়ে গেছে লেখাপড়াও। এর আগেও এই ধরনের অপরাধে মিঠুন জেল খেটেছে বলে জানিয়েছেন তার বাবা। মিঠুনকে এরিমধ্যে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করেছে জেলা সেচ্ছাসেবক লীগ। তদন্ত করে অপরাধীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছে পুলিশ।
গত ডিসেম্বরে শরীয়তপুরে ৬ নারীকে ধর্ষণের ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়র অপরাধে আটক হয় এক ছাত্রলীগ নেতাকে। অল্প দিনের ব্যবধানে সেচ্ছাসেবক লীগ নেতার এমন অপরাধে উদ্বিগ্ন সাধারণ মানুষ।

Print Friendly, PDF & Email