CC News

জেলার সাংবাদিকতা (৪)

 
 

।। নজরুল ইসলাম তমাল ॥ আশ্চর্য বিষয় হলো এখন ক্যামেরা হাতের মুঠোয়। তা শখের বসেই হোক আর কাজের বাহানাতেই। উদ্দেশ্য ভিডিওগ্রাফি! সে কারণেই বলা হয় “The good news is; everyone can shoot a movie now. The bad news is; everyone can shoot a movie now.” একটু খেয়াল করলেই কথাটির তাৎপর্য বোঝা যায়।

ক্যামেরা হাতে এলে মনে বাড়তি উৎসাহ কাজ করে, এক ধরণের গতি আসে। এই গতি আপনাকে সামনে এগিয়ে নিতে সাহায্য করে। তাই এটাও পরিস্কার হওয়ার জরুরি যে, আপনি কি করতে চাইছেন? যা আপনার সৃজনশীলতাকে অনুপ্রাণিত করবে। তা নাহলে মুল লক্ষ্য থেকে আপনি দূরে সরে পড়বেন ধীরে ধীরে।

ক্যামেরা হাতে আসার পর অনেকেই যে ভুলটি করে থাকেন তাহলো, কিছু না জেনে বা বুঝে এর নানা অপসন পরিবর্তন করে ফেলেন, কিন্তু কেন? ক্যামেরাটি যাচাই বাছাই বা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেই তা বাজারজাত করে থাকে প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠাগুলো। নিজেদের অনুমান নির্ভর ধারণা থেকে এ কাজটি করা একেবারেই ঠিক নয়। তবে পেশাদারদের জন্য বিষয়টি আলাদা।

এজন্যই বলাহয়, ক্যামেরা কেনার পর প্রথম কাজ হলো এরসঙ্গে দেয়া ম্যানুয়াল বই ভালভাবে পড়ে নেওয়া। সে অনুযায়ি যন্ত্রটিকে অপারেট করা। প্রস্তুতের সময় ক্যামেরার সব অপসন ডিফল্ট করে দেয়া হয়। এটি নবাগত বা সৌখিনদের জন্য বেশ সুবিধার। যাদের ক্যামেরার সেটিংস নিয়ে পর্যাপ্ত ধারণা নেই, শুধু তাদের জন্যই নির্মাতা প্রতিষ্ঠান অটো/স্বয়ংক্রিয় মুডে ক্যামেরার সেটিংস দিয়ে থাকে। না জেনে ম্যানুয়ালিভাবে ক্যামেরায় সেটিংস পরিবর্তন করলে, নানা ধরণের সমস্যা শুরু হতে পারে। যন্ত্রটির একটি অপসনের সঙ্গে অন্যটির আন্তঃসংযোগ রয়েছে। যখন একটির পরিবর্তন করা হয় তখন অন্যটির পরিবর্তন জরুরি হয়ে পড়ে।

ফটোগ্রাফি বলুন বা ভিডিওগ্রাফি বলুন। ভাল একটি ছবি এক হাজার শব্দের চেয়ে বেশি কথা বলে, এটি প্রমাণিত। এজন্য সবার আগে থাকতে হবে সৃষ্টিশীল চোখ। যে চোখ আগে নির্বাচন করে ছবির বিষয়বস্তুকে। পরে তা ক্যামেরায় ধারণ করা হয়। আর যখন তা লক্ষ কোটি চোখে ভাল লাগার উপকরণে পরিনত হয়, তখনই এই সৃষ্টিশীলতার সার্থকতা ফুটে ওঠে।

ভাল ভিডিওগ্রাফির কোনো নিয়ম নেই, থাকতে হবে ভাল চোখ। তবে মৌলিক কিছু দিকনির্দেশনা রয়েছে প্রাচীন সময় থেকেই। এখন যা আরও বেশি শানিত হয়েছে। যে নিয়মগুলো জানা থাকলে- ধারণকৃত দৃশ্যের ইমপেক্ট বাড়াতে, কমপেলিং দৃশ্য ধারণ করতে, প্রাকৃতিক ভারসাম্য রক্ষা করে এবং বিষয়বস্তু অনুযায়ি ছবির গুরুত্বপূর্ণ অংশ চিহ্নিত করতে সাহায্য করে। তখন অন্যের চোখে দেখা সাধারণ একটি ছবি কিছু না বলেই স্পট করতে পারবেন ব্যতিক্রমিভাবে। আর নিজেই সারপ্রাইজড হবেন ধারণ করা ছবির সমাদরের জন্য।

ভাল ভিডিওগ্রাফির জন্য যেসব মৌলিক কিছু নিয়ম জানা দরকার, তাহলো-1. Tripod, Tripod and Tripod 2. Auto/ Manual (স্বয়ক্রিয়/ম্যানুয়াল) 3.Light (আলো) 4. Audio (শব্দ) 5. Framing (কাঠামো) 6. Zooming (কাছে/দূরে) 7. Focus (কেন্দ্রবিন্দু) 8. White Balance (রঙের ভারসাম্য) 9. B-Roll 10. Perspective & Composition (দৃষ্টিকোণ ও কম্পোজিশন)।

লেখক: মিডিয়া ব‌্যাক্তিত্ব

Print Friendly, PDF & Email