CC News

জয়পুরহাটে কলেজ শিক্ষকের যাবজ্জীবন কারাদন্ড

 
 

জয়পুরহাট প্রতিনিধি, ২১ মার্চ: জয়পুরহাটের কালাই উপজেলার কাথাইল গ্রামের আব্দুস সালামের মেয়ে কলেজ ছাত্রী সাদিয়া ইসলাম সোমার উপর এসিড নিক্ষেপের মামলায় সোমার ফুফা কলেজ শিক্ষক সাইফুল ইসলাম বাবুকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছে আদালত। মঙ্গলবার দুপুরে জয়পুরহাট জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক আব্দুল মজিদ এ রায় দেন।

মামলার বিবরনে জানা যায়, গত ২০১৩ সালের ১৩ আগষ্ট রাতে কালাই ডিগ্রী কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্রী সোমা তার শয়ন কক্ষে ঘুমিয়ে ছিলেন। ওই দিন মধ্য রাতের দিকে সোমার ফুফা একই গ্রামের শাহজাহান আলীর ছেলে ও পার্শ্ববর্তী গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার পিয়ারা মহিলা কলেজে প্রভাষক সাইফুল ইসলাম বাবু পূর্ব শত্রুতার জের ধরে সোমার উপর এসিড নিক্ষেপ করেন। এতে সোমার শরীরের বিভিন্ন অংশ ঝলসে গেলে তাকে প্রথমে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ও পরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়ার পর বর্তমানে তিনি সুস্থ আছেন।

এ ব্যাপারে একই বছর ২১ আগষ্ট সোমার বাবা আব্দুস সালাম বাদী হয়ে বাবুর বিরুদ্ধে মামলা করেন। মামলার দীর্ঘ শুনানী শেষে এক জনাকীর্ন আদালতে বাবুর বিরুদ্ধে যাবজ্জীবন কাড়াদন্ড ও ১ লাখ টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ২ বছরের সশ্রম কারাদন্ডের আদেশ দেন জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক।

তবে এ রায়ে সন্তুষ্ট হতে পারেননি বাদী সোমার বাবা ও এ মামলার বাদী আব্দুস সালাম, তিনি আসামীর সর্বোচ্চ শাস্তি ফাঁসির দাবীতে উচ্চ আদালতে আপীল করবেন বলেও জানান।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে রাষ্ট্র পক্ষের আইনজীবি (পিপি) এ্যাড. নৃপেন্দ্রনাথ মন্ডল জানান, এ রায়ে দৃষ্টান্ত স্থাপিত হয়েছে, এতে করে এ ধরনের অপরাধীরা আর সাহসী হবে না বলেও জানান তিনি।

Print Friendly, PDF & Email