CC News

সৈয়দপুরে গভীর রাতে অসহায়দের বাসায় ইউএনও

 
 

।। নওশাদ আনসারী।। ঘড়ির কাটা তখন রাত ১২ টা ছুই ছুই। বুধবার (১৩ জুন) রাতে এভাবেই হঠাৎ গাড়ীতে করে স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠন আমাদের প্রিয় সৈয়দপুর এর সদস্যদের সাথে নিয়ে নীলফামারীর সৈয়দপুরের গোলাহাট এলাকায় ঈদের ত্রান চাল, ময়দা, ডাল, চিনি, সেমাই, তেল, ছোলা, দুধ নিয়ে হাজির সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইওএনও) মো. বজলুর রশীদ সাথে তার সহধর্মিনী সহকারী কর কমিশনার নাজনীন নিপা। খোজ করতে লাগলেন প্রকৃত অসহায়দের। এ সময় ইউএনও ও তার সহধর্মিনী মা বাবা হারা প্রকৃত অসহায়দের বাসায় বাসায় গিয়ে এক একজনকে ১০ কেজি করে চাল, ৭ কেজি ময়দা, ২ লিটার তেল, ২ কেজি চিনি, ২ কেজি মসুর ডাল, ২ কেজি ছোলা, ১ কেজি সেমাই, আধা কেজি পাউডার দুধ নিজ হাতে প্রদান করেন।
হাতে ত্রান পেয়ে অসহায় মেয়েকে নিয়ে বিদ্যুৎহীন এক ঝুপড়িতে থাকা গোলাহাটের মরিয়ম নেছা আবেগপ্লুত হয়ে বলেন, ভাবতেও পারিনি রাতে ঘুম থেকে উঠিয়ে কেউ এতগুলো ত্রান দিয়ে যাবে। কান্নাজড়িত চোখে তিনি বলেন, আল্লাহ এরুপ ভাল মানুষকে সর্বদা ভাল রাখুক। এরুপ একই এলাকার অসহায় হাসিনা, জালাল, বেচনা, সাইরুন বেওয়াসহ আরো কয়েকজন অসহায়কে গভীর রাতে ত্রান দিয়ে আসলেন ইউএনও ও তার সহধর্মিনী নাজনীন নিপা। যাদের কারোর ঘরে বিদ্যুৎ নেই আবার কারোর ঘরে নেই এক বেলার খাবার।
প্রকৃত অসহায়দের খোজে ও ত্রান বিতরণ কাজে সহযোগিতা করা স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক মিথুন হাসান আয়ান বলেন, ত্রানগুলো ইউএনও স্যার ও তার সহধর্মিনীর পক্ষ থেকে দেওয়া হচ্ছে আমরা শুধু প্রকৃত দুস্থ যাদের ত্রনের খুব প্রয়োজন আছে এরুপ অসহায়দের খোজ করে তাদের দ্বারে স্যারকে নিয়ে যাচ্ছি মাত্র। বিতরণকালে আরো উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক নওশাদ আনসারী, অর্থ সম্পাদক সাজিদ সাজু, দপ্তর সম্পাদক জীবনসহ ইমরান, খোকন, রাজু প্রমুখ।
সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) বজলুর রশীদ বলেন, ত্রানের যে প্রকৃত হকদার তাদের বাসায় গিয়ে পৌছে দেওয়ার চেষ্টা করছি আমরা। ঈদের আগ পর্যন্ত্র এরুপ প্রকৃত অসহায়দের খোজ করে ত্রান দেওয়া হবে। এরুপ অসহায়দের খোজ করার জন্য তিনি আমাদের প্রিয় সৈয়দপুর এর সদস্যদের ধন্যবাদ জানান।

Print Friendly, PDF & Email