CC News

সৈয়দপুর থেকে চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার রুটে বিমান চালুর সিদ্ধান্ত

 
 

সিসি নিউজ, ২৩ জুন: গত তিন বছরে দেশের ভেতরে যাত্রী কয়েকগুণ বাড়লেও সক্ষমতায় পিছিয়ে অভ্যন্তরীণ বিমানবন্দরগুলো। এভিয়েশন সংশ্লিষ্টরা বলছেন, ২০২৫ সাল নাগাদ যাত্রী সংখ্যা বাড়বে তিনগুণ। অবশ্য নিয়ন্ত্রক সংস্থা বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ বলছে সক্ষমতা বাড়াতে তিন বিমানবন্দরে অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্প নেয়া হয়েছে।
রংপুর বিভাগে চালু আছে শুধু সৈয়দপুর বিমানবন্দর। প্রতিদিন এখানে ওঠানামা করে অন্তত ১০টি উড়োজাহাজ। যাত্রী সংখ্যা বাড়লেও ১৯৭৯ সালের অবকাঠামো নিয়েই চলছে এটি।
একই অবস্থা যশোর বিমানবন্দরেরও। ২০১৪ সালে অভ্যন্তরীণ যাত্রী ছিলো ১৫ লাখ। ২০১৭ সালে তা দাঁড়িয়েছে ২৩ লাখে। অবকাঠামো উন্নয়ণ না হওয়ায় প্রতিনিয়ত ভোগান্তিতে পড়ছেন যাত্রীরা।
বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ বলছে, যাত্রী বাড়ার বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে কক্সবাজার, যশোর ও সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবকাঠামো উন্নয়নে প্রকল্প নেয়া হয়েছে।
আগামী বছরের সেপ্টেম্বরে সৈয়দপুর থেকে সরাসরি চট্টগ্রাম ও কক্সবাজারে ফ্লাইট চালুর পরিকল্পনা রয়েছে জাতীয় পতাকাবাহী বিমানসহ বেশ কয়েকটি এয়ারলাইন্স। ফলে যাত্রীও সংখ্যায় বাড়বে বলে ধারণা করছে এয়ারলাইন্সগুলো।

উৎস: ইনডিপেনডেন্ট টেলিভিশন

Print Friendly, PDF & Email