CC News

মাদারগঞ্জে হচ্ছে শেখ হাসিনার নামে টেক্সটাইল মিল

 
 

সিসি ডেস্ক, ০৪ জুলাই: জামালপুরের মাদারগঞ্জে স্থাপিত হতে যাচ্ছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামে অত্যাধুনিক প্রযুক্তিনির্ভর বিশেষায়িত পাটশিল্প কারখানা ‘শেখ হাসিনা স্পেশালাইজড জুট টেক্সটাইল মিল’।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদ-একনেকের সভায় এই মিল স্থাপনের জন্য ৫১৮ কোটি টাকার প্রকল্পের অনুমোদন দিয়েছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন বাংলাদেশ পাটকল করপোরেশন-বিজেএমসির বাস্তবায়নে জামালপুর জেলার মাদারগঞ্জ উপজেলার বালিজুড়ি ইউনিয়নের কামারিয়া চরে ৩৪ একর জমিতে এই ‘শেখ হাসিনা স্পেশালাইজড জুট টেক্সটাইল মিল’ স্থাপিত হবে।

একনেকে প্রকল্পটি গতকাল মঙ্গলবার পাস হওয়ায় এই মিল স্থাপনের সম্ভাবনা বাস্তবে রূপ নিল। আগামী দুই বছরের মধ্যে বিজেএমসি এই মিল স্থাপনের কাজ শেষ করবে বলে প্রস্তাবিত প্রকল্পে সময় নির্ধারণ করে দেওয়া হয়েছে। এ প্রকল্পের ব্যয় ধরা হয়েছে ৫১৮ কোটি টাকা।

সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার বিশ্বজুড়ে পাটের বহুমাত্রিক ব্যবহার বাড়ানো এবং পাটের বাণিজ্যিক সম্ভাবনাকে গুরুত্ব দিচ্ছে। এরই অংশ হিসেবে কারখানার জন্য পাটের কাঁচামালের সহজলভ্যতা, দারিদ্র্যের হার ও কর্মসংস্থানের সুযোগ বিবেচনায় সরকার মাদারগঞ্জে এই মিল স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।

বর্তমানে দেশের রপ্তানি আয়ের বেশিরভাগ আসে পোশাক খাত থেকে। উন্নত অর্থনীতির দেশ হতে হলে রপ্তানিতে বহুমুখীকরণ করতে হবে। পাটপণ্য পরিবেশবান্ধব হওয়ায় দেশীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে এর ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে পাটের এই বাণিজ্যিক সম্ভাবনাকে কাজে লাগানো যাবে। পাশাপাশি বেসরকারি খাতও পাটের বাণিজ্যিক প্রসারে এগিয়ে আসতে উৎসাহিত হবে, যা কর্মসংস্থান সৃষ্টি ও পরিবেশ সুরক্ষায় সহায়ক হবে।

প্রকল্প সূত্রে জানা গেছে, এই জুট মিল স্থাপিত হলে পোশাক শিল্পের জন্য তিন স্তরের জিএসপি সুবিধা আদায় করার জন্য পরিবেশবান্ধব সংমিশ্রিত সুতা ও কাপড় উৎপাদন করা যাবে। পাট ও তুলার মিশ্রণে কম খরচে সুতা, কাপড় ও তৈরি পোশাক বিশেষভাবে ডেনিম প্যান্ট, জ্যাকেট, শার্টসহ অন্তত ১০৭ রকম পাটপণ্য তৈরি ও বিক্রি করা যাবে। এতে রপ্তানি আয় বাড়বে। তাছাড়া ডেনিম উৎপাদনের পর অতিরিক্ত সুতা দিয়ে বাসাবাড়িতে ব্যবহার্য বিভিন্ন বস্ত্র ও মালামাল তৈরি করা যাবে। এ কারখানা থেকে বছরে চার লাখ ৩২ হাজার ডজন ডেনিম প্যান্ট তৈরি করে রপ্তানি করা যাবে। এ ছাড়া দুই কোটি ১৩ লাখ ৪০ হাজার গজ ডেনিম ও অন্যান্য কাপড় উৎপাদন করা যাবে, যা দেশের পোশাক কারখানায় সরবরাহ করা যাবে।

বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম একনেকের সভায় ‘শেখ হাসিনা স্পেশালাইজড জুট টেক্সটাইল মিল’  প্রকল্পটির অনুমোদন পাওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি জামালপুরবাসীর পক্ষ থেকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে কালের কণ্ঠ’র কাছে প্রতিক্রিয়ায় বলেছেন, ‘জামালপুর জেলাকে একটি উন্নত জেলায় রূপান্তরের প্রচেষ্টার অংশ হিসেবেই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এত বড় এই জুট মিল জামালপুরে স্থাপনের জন্য অনুমোদন দিয়েছেন।’

প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম এই জুট মিল প্রসঙ্গে বলেন, ‘এই জুট মিলটি স্থাপিত হলে প্রকল্প এলাকার অন্তত তিন  হাজার লোকের প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে চাকরির সুযোগ সৃষ্টি হবে। প্রচুর বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের পাশাপাশি দেশীয় পোশাক শিল্পকে সাশ্রয়ী মূল্যে সুতা ও কাপড় সরবরাহ করে তিন স্তরের জিএসপি সুবিধা অর্জনে সহায়তা করা সম্ভব হবে। ফলে বহুমুখী পাটপণ্য উৎপাদন ও রপ্তানিতে প্রকল্পটি জাতীয় অর্থনীতিতে সহায়ক ভূমিকা রাখবে।’

Print Friendly, PDF & Email