• বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৬:২৩ পূর্বাহ্ন |

ব্র্যাক ব্যাংক একাউন্টে হ্যাকারদের হানা

bracbankঅর্থ-বাণিজ্য ডেস্ক: ব্র্যাক ব্যাংকের বেশ কয়েকজন গ্রাহকের হিসাব হ্যাক করে অর্থ স্থানান্তরের প্রমাণ পাওয়া গেছে। গত অক্টোবর ও নভেম্বরে অনলাইনে এসব হিসাব থেকে অর্থ সরানো হয়। বাংলাদেশ ব্যাংকের ফাইন্যান্সিয়াল ইন্ট্রিগ্রিটি অ্যান্ড কাস্টমার সার্ভিসেস ডিপার্টমেন্টের (এফআইসিএসডি) এক তদন্ত প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ব্র্যাক ব্যাংকের অন্তত ৩০টি হিসাব থেকে একই ব্যাংকের অন্য হিসাবে ২০ লাখ টাকার মতো সরিয়ে নেয়া হয়েছে। জানা যায়, ওবায়দুর রহমান, মুশফিক ও রাকিব নামের গ্রাহক প্রথমে এফআইসিএসডি কাছে অভিযোগ নিয়ে যান। এরপর খতিয়ে দেখা যায় শুধু ওই তিনজনের নয়, ৩০ থেকে ৩৫টি অ্যাকাউন্ট থেকে একইভাবে টাকা সরানো হয়েছে। অবশ্য যাদের হিসাবে এই অর্থ স্থানান্তর করা হয়েছে তারা ‘কিছুই জানেন না’ বলে দাবি করেছেন।

এফআইসিএসডির ধারণা, কোনো ‘সংঘবদ্ধ দুর্বৃত্তগোষ্ঠী পরীক্ষামূলকভাবে’ এ কাজটি করেছে। তারা বুঝতে চেষ্টা করেছে এভাবে টাকা সরালে ধরা পড়ার ঝুঁকি কতটা। এ ঘটনার কারণ হিসাবে ব্যাংকটির অনলাইন কার্যক্রমের নিরাপত্তা দুর্বলতাকে দায়ী করেছে এফআইএসডি।

বাংলাদেশ ব্যাংকের ওই তদন্ত প্রতিবেদনে বলা হয়, ব্র্যাক ব্যাংকের ইন্টারনেট ব্যাংকিং প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ স্বয়ংক্রিয় নয়। এতে নিরাপত্তা সংশ্লিষ্ট কিছু ত্রুটি আছে। এ কারণে ‘গ্রাহক স্বার্থের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা’ নিশ্চিত করতে ব্যাংকটির ইন্টারনেট ব্যাংকিং প্রক্রিয়ায় কিছু পরিবর্তন ও পরিবর্ধন জরুরি।

সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ব্র্যাক ব্যাংকের ইন্টারনেট ব্যাংকিংয়ের পাসওয়ার্ড রিসেট (পুনর্স্থাপন) করার প্রক্রিয়ায় ‘দুই স্তরের সঠিকতা যাচাই’ করা হয় না। এক্ষেত্রে কল সেন্টারের একই ব্যক্তি তা যাচাই বাছাই করেন। ফলে এ প্রক্রিয়ায় অসঙ্গতি থাকে।

তাছাড়া ব্যাংকটির ইন্টারনেট ব্যাংকিংয়ের প্রচলিত ব্যবস্থা মূলতঃ মোবাইল নম্বর বা সিম ভিত্তিক। এসব মোবাইল নম্বর বা সিমে ব্যাংকটির কোনো নিয়ন্ত্রণ না থাকায় সহজেই সিম ‘রিপ্লেসমেন্ট’ হয়ে যায়।

ব্যাংক কর্তৃপক্ষ সময়মত কার্যকর পদক্ষেপ না নেয়ায় ইন্টারনেট ব্যাংকিংয়ের গ্রাহকরা আর্থিক ক্ষতির সম্মুখিন হয়েছেন বলেও প্রতিবেদনে উল্লেখ রয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ