• সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ০৪:২২ অপরাহ্ন |

জাপা’র সংরক্ষিত ৬ মহিলা আসনে প্রার্থী চূড়ান্ত

Arsadসিসি নিউজ: নানা জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে অবশেষে সংরক্ষিত ৬ মহিলা আসনে প্রার্থী চূড়ান্ত করেছে জাতীয় পার্টি। এরমধ্যে তিনজন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এরশাদের পছন্দের। আর বাকি তিনজন বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদের পছন্দের। জাপা সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে ।
এরশাদের পছন্দের তিনজন হলেন- মেরিনা রহমান, শাহানারা বেগম (রংপুর), মাহজাবিন মোরশেদ (চট্রগ্রাম)। এরমধ্যে মেরিনা রহমান এরশাদের ছোট বোন। আর রওশনের পছন্দের তিনজন হলেন- পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য নুর-ই-হাসনা লিলি চৌধুরী, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা রওশনারা মান্নান, কক্সবাজারের খোরশেদারা হক।
এই ছয়জনই দশম জাতীয় সংসদে জাতীয় পার্টির পক্ষ থেকে সংরক্ষিত আসনের মহিলা এমপি হিসাবে প্রতিনিধিত্ব করবেন। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বিরোধী দলীয় চীফ হুইপ ও দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য তাজুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, এই ছয়টি নাম মোটামুটি নিশ্চিত। তবে ম্যাডাম (রওশন) আমার হাতে তালিকা না দেওয়া পর্যন্ত পুরোপুরি নিশ্চয়তা দেওয়া যাচ্ছেনা। তিনি আজকের মধ্যেই আমার হাতে তালিকা দেবেন।
প্রসঙ্গত, সংসদের নারীদের জন্য সংরক্ষিত ৫০টি আসনের মধ্যে জাপার ভাগে পড়েছে ছয়টি। এই ৬ আসনের বিপরীতে ৯৬টি মনোনয়নপত্র বিক্রি করে দলটি। গত ১৭, ১৮ ও ১৯ জানুয়ারি চলে এ মনোনয়নপত্র বিক্রি। ২০ জানুয়ারি দলের চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ তাঁর বনানীস্থ কার্যালয়ে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের উদ্দেশে সৌজন্য বক্তব্য দেন।
এরপর থেকে শুরু হয় এ নিয়ে নানা তর্ক-বিতর্ক। এরশাদের পছন্দের তালিকায় প্রথমে যে নামগুলো এসেছিল সেগুলো হলো- এরশাদের পালিতকন্যা অনন্যা ইসলাম মৌসুমী, ব্যারিস্টার দিলারা খন্দকার, চিত্রনায়িকা শারমিন, ছোট বোন মেরিনা রহমান, জি এম কাদেরের স্ত্রী শেরিফা কাদের, ব্যবসায়ী ইব্রাহিম মোর্শেদের স্ত্রী মেহজাবিন মোর্শেদ, নারায়ণগঞ্জের শাহজাহানের স্ত্রী শানজিদা, সাবেক সেনা কর্মকর্তা গিয়াউদ্দিন চৌধুরীর স্ত্রী মাহমুদা চৌধুরী।
কিন্তু বর্তমানে দলের সিংহভাগ কতৃত্বের অধিকারী রওশন পুরো ৬টি নামই বাগিয়ে নিতে চেয়েছেন। এ নিয়ে পার্টির চেয়ারম্যান এরশাদের সঙ্গে রওশনের দ্বন্দ্ব চরমে উঠে । প্রথমে বলা হয়েছিল এরশাদের দেওয়া নাম থেকে একটিও দেওয়া হবে না। পরে দুটি। এরপরে তিনটি নামই টিকে যায় এরশাদের তরফ থেকে।
এদিকে এরশাদ বা রওশন কোন পক্ষের সঙ্গেই ভালো যোগযোগ রক্ষা করতে না পারায় তালিকা থেকে বাদ পড়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক ও দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য অধ্যাপিকা মাসুদা এম. রশিদ চৌধুরী। জাতীয় পার্টির অধিকাংশ নেতাকর্মীদের মতে তিনিই ছিলেন যোগ্য প্রার্থী। কারণ, জাপার নারী নেত্রীদের মধ্যে রওশনের পরেই তার অবস্থান।
উৎসঃ   শীর্ষ নিউজ


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ