• শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১২:৪২ অপরাহ্ন |

ভালো শুরুর ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী মুশফিক

Rahim-2সিসি ডেস্ক: এমন নয় বাংলাদেশ খুব খারাপ খেলছিল। ম্যাচের একটা-দুটো মুহূর্তই পাল্টে দিচ্ছিল ফল। কিন্তু টানা নয়টি পরাজয়ের ক্লান্তিকর ছাপ দলে পড়াই স্বাভাবিক। মুশফিকুর রহিম এ-ও জানতেন, একটা-দুটো জয় আবার পাল্টে দেবে ছবিটা। হোক না প্রস্তুতি ম্যাচ, পরপর দুটো জয় তাই আত্মবিশ্বাসের এক পশলা টাটকা সুবাতাস এনে দিয়েছে দলের মধ্যে। আগামীকাল আফগানিস্তানের বিপক্ষে লড়াইটা অনেকের চোখে অগ্নিপরীক্ষা হলেও আজ সংবাদ সম্মেলনে বেশ প্রত্যয়ী মনে হলো মুশফিককে।
মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে মুশফিক বললেন, ‘সবাই ভালো খেলার জন্য মুখিয়ে আছি। কাল ভালো একটা শুরুর ব্যাপারে আমরা আত্মবিশ্বাসী। আশা করি, এর ধারাবাহিকতা পুরো টুর্নামেন্টে ধরে রাখতে পারব।’
আফগানিস্তানকে অবশ্যই গুরুত্ব দিচ্ছে বাংলাদেশ। তবে সেটা এশিয়া কাপের তিক্ত স্মৃতির কারণে নয়, বরং টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচটাই তাদের সঙ্গে পড়েছে বলে। আসল বিশ্বকাপ শুরুর আগেই স্বাগতিকেরা দর্শক হয়ে যাবে কি না, সেই প্রশ্নের অনেকটাই উত্তর মিলবে কালকের ম্যাচে। ‘সুপার টেন’-এ যেতে চাইলে এই গ্রুপ থেকে চ্যাম্পিয়ন হতেই হবে বাংলাদেশকে। মুশফিকের ভাবনায় তাই বাকি দুই প্রতিপক্ষও গুরুত্ব পাচ্ছে, ‘গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্য কালকের ম্যাচে জয় জরুরি। তাই এই ম্যাচের দিকেই আমাদের সম্পূর্ণ মনোযোগ। তবে প্রতিটি ম্যাচই আমরা জয়ের জন্য খেলব। আফগানিস্তানের মতো নেপাল ও হংকংও শক্তিশালী প্রতিপক্ষ।’
এশিয়া কাপে আফগানদের টুঁটি চেপে ধরেও শেষ পর্যন্ত ম্যাচটা হেরেছিল বাংলাদেশ। তাতে মুশফিকের রক্ষণাত্মক অধিনায়কত্বের একটা পরোক্ষ ভূমিকাও ছিল। তবে এবার আর সামান্য ছাড় আফগানিস্তান পাবে না বলেই দৃঢ় কণ্ঠে বললেন মুশফিক, ‘প্রথম থেকেই ওদের চাপে রাখতে চাই। চাপে ওরা কেমন খেলে, সেটা এখন আমরা জানি। ওদের অনেক দুর্বলতার কথাও আমাদের জানা। আশা করি, এটা কাজে লাগাতে পারব। টি-টোয়েন্টি হয়তো ওরা বেশি খেলেছে। কিন্তু আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আমরা ওদের চেয়ে অভিজ্ঞ। ব্যক্তিগত স্কিলের দিক থেকেও আমরা এগিয়ে।’
বাংলাদেশ হারলে নিজেদের দোষেই হারবে, সেটাও স্পষ্ট করে দিলেন অধিনায়ক। আর তাই নিজেদের সামর্থ্যের প্রতি সবার আস্থা ফিরে পাওয়াও জরুরি, ‘দলের ওপর সবার আস্থা ফেরানোই মূল লক্ষ্য। তা করার মতো সামর্থ্য আমাদের রয়েছে। তবে এখন কথা বলার চেয়ে কাজ করে দেখানোর সময়। আশা করি, কাল থেকেই তা পারব।’
সবচেয়ে বড় কথা, বাংলাদেশ দলের পাশে আছে অদম্য সমর্থকেরা। যাঁরা দলে দুঃসময়ে আরও বেশি পাশে এসে দাঁড়ায়। দলও সাফল্যের জন্য বুভুক্ষুর মতো চেয়ে আছে। রোববারের ভোর বাংলাদেশের ক্রিকেটে নতুন সূর্যোদয় এনে দেবে, এটাই মুশফিকের আশা।
উৎসঃ   প্রথম আলো


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ