• বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ১০:৪৬ পূর্বাহ্ন |

খানসামায় প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

Oniomখানসামা (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: দিনাজপুরের খানসামায় সদ্য জাতীয়করণকৃত একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যাপক অনিয়ম ও দুর্নীতির লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে।
অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার ভাবকী ইউনিয়নের ৬৮নং রামনগর ঈদগাহ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রমজান আলী দীর্ঘ দিন ধরে শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি বিতরণে অর্থ আদায় সহ নানা অনিয়ম দুর্নীতি করে আসছে। সাদাসিধে ভাবধারী মামলাবাজ এবং অসৎ প্রকৃতির ওই শিক্ষকের এসব অনিয়ম ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে কেউ কথা বলতে সাহস পায়নি। কিন্তু গত উপবৃত্তি বিতরণের সময় তিনি নানা অজুহাত দেখিয়ে শিক্ষার্থীর অভিভাবক রিণু বালা, নিলা বালা, কাছু রাণী বালা, মিনতি বালা,  স্বপ্না রাণী, নুরবানু, শিল্পী রাণী, মোমিনা,  আসমা, আকলিমা, ধন বালা ও সেলিনা বেগমের কাছে ২০ টাকা থেকে ১৫০ টাকা পর্যন্ত জোর করে আদায় করায় নব নির্বাচিত স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মনজেল আলীর কাছে তারা মৌখিক অভিযোগ করেন। এতে সভাপতি মনজেল আলী সোচ্চার হয়ে এসএমসি’র বিদ্যোৎসাহী সদস্য আব্দুল জলিল, মহিলা বিদ্যোৎসাহী সদস্যর স্বামী সহিদুল ইসলাম, ছাত্র অভিভাবক মোজাম্মেল হক, অভিভাবক সদস্যর স্বামী বিপিন চন্দ্র রায় এবং একজন জনসাধারণ দেলোয়ার হোসেনকে সাথে তদন্ত করলে ঘটনার সত্যতা খুঁজে পান। এ ঘটনায় গত ২৪ মার্চ এসএমসি’র সভাপতি, সদস্য এবং এলাকাবাসীসহ ১৮ জনের স্বাক্ষরিত একটি অভিযোগপত্র উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও উপজেলা শিক্ষা অফিসার বরাবর দাখিল করে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে অনুলিপি করেন।
নাম প্রকাশে অনেচ্ছুক এলাকাবাসী ও পার্শ্ববর্তী বিদ্যালয়ের একাধিক শিক্ষক জানান, প্রধান শিক্ষক রমজান আলী বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার পর থেকে কোন দিন সময় মত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আসেননি এবং শিক্ষার্থীদের দিয়ে দৈনিক সমাবেশ (এ্যাসেমব্লি) কিংবা জাতীয় সংগীত গাইতে দেখা যায়নি। এছাড়াও তিনি অসামাজিক কাজে লিপ্ত ও লাঠিয়াল বাহিনী দিয়ে অন্যের জমি জোড় দখলে নিরীহ মানুষকে জখম করায় তার বিরুদ্ধে দিনাজপুর জুডিশিয়ার মেজিস্ট্রেট আমলী আদালত ও অতিরিক্ত জেলা মেজিস্ট্রেট আদালতে মামলা রয়েছে। যার নম্বর-৮৩সি/২০১১ এবং ৩৯৫সি/২০১১।
এসব ঘটনায় প্রধান শিক্ষক রমজান আলীর সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি এসব অভিযোগ অস্বীকার করেন।  পরে উপজেলা শিক্ষা অফিসার নুরুল আমীনের সাথে কথা হলে তিনি বলেন, আজকে খানসামায় আমার শেষ অফিস ডে। আমি অভিযোগপত্রটি এখনও হাতে পাইনি। আপনার কাছে শুনলাম এখন দেখতেছি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ