• রবিবার, ০৩ জুলাই ২০২২, ০৬:১৯ পূর্বাহ্ন |

রৌমারীতে লাশ দেখে আরো একজনের মৃত্যু

manik imageরাজিবপুর (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের রৌমারীতে বৈদ্যুতিক খুটিতে বাঁধা অবস্থায় এক যুবকের লাশ উদ্ধার করা করেছে এলাকাবাসি। তবে হত্যা না আত্মহত্যা এ নিয়ে এলাকায় ব্যাপক আলোচনার ঝড় উঠেছে । জানা গেছে, রৌমারীর যাদুর চর ইউনিয়নের শিবের ডাঙ্গী গ্রামের গোলাম হোসেনের পুত্র মানিক মিয়া (২১) শুক্রবার বিকাল ৩টায় নিখোজঁ হয়। সারারাত খোজ করেও তাকে পাওয়া যায়নি। শনিবার ভোর ৬টায় বাড়ির পাশ্ববর্তি ভূট্টা ক্ষেতের মাঝখানে স্থাপিত বৈদ্যুতিক খুটির সাথে বাঁধা অবস্থায় এলাকা বাসি দেখতে পায়। সে বেচে থাকতে পারে ভেবে এলাকাবাসি তাকে উদ্ধার করে ডাক্তারকে দেখানো হলে ডাক্তার তাকে মৃত্যু বলে ঘোষনা করে।  রৌমারী থানা পুলিশ সকাল সাড়ে ১০টার দিকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। মানিকের মৃত্যু নিয়ে এলাকায় চলছে নানা গুঞ্জন। পারিবারিক সুত্রে জানা গেছে ২১ দিন আগে একই উপজেলার ধনার চর গ্রামের আমীর হামজার কন্যা রিতা বেগমের সাথে মানিকের বিবাহ হয়। বিবাহের পুর্বে  মানিককে মোবাইল ফোনে অজ্ঞাত ব্যক্তি বিয়ে না করার জন্য বলেছিল। অভিযোগে  আরও জানা যায়, রিতাকে বিয়ে করলে মেরে ফেলা হবে বলে মানিককে হুমকি দেওয়া  হয়। তার হত্যাই প্রমান করে অজ্ঞাতসেই ব্যক্তি তাকে হত্যা করে বৈদ্যুতিক খুটির সাথে বেধে রাখে। এদিকে তার হত্যার খবর শুনে লাশ দেখতে এসে একই গ্রামের আলহাজ আহাম্ম্দ আলী (৮৫) হার্ট এ্যাটাক করে মারা যান । এব্যাপারে রৌমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শামীম হোসেন সর্দার জানান, লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে । এটি হত্যা না আত্মহত্যার তার কু খোজার চেষ্টা চলছে ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ