• মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২, ০৩:৪১ পূর্বাহ্ন |
শিরোনাম :

রাবির দুই ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়েছে শিবির

RABIরাবি: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে মাসুদ হাসান নামের এক ছাত্রলীগকর্মীকে কুপিয়ে শরীর থেকে পা কেটে বিচ্ছিন্ন করে দিয়েছে শিবির। এসময় তার সঙ্গে থাকা ছাত্রলীগের ছাত্র-বৃত্তিবিষয়ক সম্পাদক টগর মোহাম্মদ সালেহীরও হাত-পায়ের রগ কেটে দেওয়া হয়।

তাদের দুইজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপতালে নেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের হবিবুবর রহমান মাঠের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

শিবির পরিকল্পিতভাবে এই হামলা চালিয়েছে বলে দাবি করেছে ছাত্রলীগ।

আহত মাসুদ হাসান বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী এবং বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আয়াতুল্লাহ বেহেস্তির ছোট ভাই। টগর মোহাম্মদ সালেহীর বিশ্ববিদ্যালয়ের ফোকলোর বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাদার বখশ হল থেকে ক্লাসে যাওয়ার জন্য বের হন মাসুদ ও টগর। তারা হল থেকে হেটে জিয়াউর রহমান হল পার হয়ে হবিবুর মাঠ দিয়ে বিভাগের দিকে আসছিলেন। এ সময় পেছন থেকে চার-পাঁচজন শিবির ক্যাডার এসে তাদের কুপিয়ে বাম পা শরীর থেকে আলাদা করে দেয়।

এছাড়াও মাসুদের বাম হাতের রগও কেটে দেয়। পাশে থাকা টগরেরও হাত ও পায়ের রগ কেটে দেওয়া হয়। এ সময় পাশের দোকানদাররা তাদের ধরতে এলে দুটি ককটেল ফাটিয়ে শিবির ক্যাডাররা পালিয়ে যায়। পরে খবর পেয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাম্বুলেন্সে করে তাদের দুইজনকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি মিজানুর রহমান রানা বলেন, শিবির ক্যাডাররা পরিকল্পিতভাবে এই হামলা চালিয়েছে। আহত নেতাদের মেডিকেলে ভর্তি করা হয়েছে।

মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর হোসেন বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় শিবিরের নেতা হান্নান, ওয়ালিউল্লাহ ও মাহমুদকে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা মারধরের সময় মাসুদ সঙ্গে ছিলেন। এর জের ধরেই শিবির তাদের ওপর হামলা করতে পারে বলেই ধারণা করা হচ্ছে। অপরাধীদের ধরতে এরই মধ্যে অভিযান শুরু হয়েছে। –


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ