• শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ১০:৩৩ পূর্বাহ্ন |

সোনাহাট স্থল বন্দরের যাত্রা শুরু

NAGESWARI NEWS-29.04.14খলিলুর রহমান, নাগেশ্বরী (কুড়িগ্রাম): অবশেষে দীর্ঘ প্রতিক্ষার পর গত সোমবার সোনাহাট স্থল বন্দর দিয়ে  ২৮ মে.টন কয়লা আমদানীর মাধ্যমে দেশের ১৮ তম স্থল বন্দরের শুভ সুচনা  করা হলো। এর আগে গত বছরের ৪ সেপ্টেম্বর নৌপরিবহণ মন্ত্রী শাহজাহান খান সোনাহাট স্থল বন্দরের অবকাঠামো ও মালামাল আমদানী রপ্তানীর আনুষ্ঠানিক ফলক উন্মোচন করলেও ভারতীয় কাষ্টম বিভাগের জটিলতার কারনে মালামাল আমদানী রপ্তানী বন্ধ ছিলো। অবশেষে দীর্ঘ ৮ মাস পর ভারত থেকে কয়লা আমদানীর মাধ্যমে এ বন্দর দিয়ে আমদানী রপ্তানির শুভ সুচনা করা হলো। ওইদিন ভারতীয় জনতার করতালির মাধ্যমে আসাম রাজ্যের ধুপড়ি জেলার ডেপুটি কমিশনার টি, তামির ও কাষ্টম কমিশনার জি,প্যানমি কয়লা ভর্তি ট্রাকটি নিয়ে জিরো পয়েন্টে আসেন। এসময় আসামের ধুপড়ি জেলার সি এনড এফ এসোসিয়েশনের নেতৃবৃন্দ , বিএসএফের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও কাষ্টম বিভাগের অফিসাররা উপস্থিত ছিলেন। সেখানে অপেক্ষমান রংপুর কাষ্টম বিভাগের কমিশনার মুজিবুর রহমান, যুগ্ম কমিশনার কামরুজ্জামান, উপজেলা চেয়ারম্যান নুরুন্নবী চৌধুরী ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার এজেএম এরশাদ আহসান হাবিব তাদেরকে ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা জানান। পরে আনুষ্ঠানিকতা শেষে কয়লা ভর্তি ট্রাকটি বাংলাদেশী মানুষের করতালির মাধ্যমে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করে। সোনাহাট কাষ্টম সিএন্ড এফ এসোসিয়েশনের সভাপতি বিনয় কৃষœ ও সম্পাদক সরকার রকীব আহম্মেদ জানান,  সোনাহাট স্থল বন্দর চালু হওয়ায় বুড়িমারী স্থল বন্দরের চেয়ে প্রায় আড়াইশত কিলো মিটার পথ কমে যাওয়ায় এপথে কয়লার মুল্য কম পড়বে। এছাড়া সোনাহাট স্থল বন্দরের সাথে নদী বন্দর চালু থাকায় সড়ক ও  নৌপথে  মালামাল পরিবহনের সুবিধা রয়েছে। প্রথম দিনে ২টি এজেন্টের মাধ্যমে ২৮ মে.টন কয়লা বাংলাদেশে প্রবেশ করে। সোনাহাট স্থল বন্দর চালু হওয়ায়  অবহেলিত কুড়িগ্রাম জেলার মানুষের দীর্ঘ দিনের স্বপ্ন বাস্তবে রুপ পেলো।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ