• শনিবার, ০২ জুলাই ২০২২, ০১:৩৫ অপরাহ্ন |

দিনাজপুরে তথ্য প্রযুক্তি উন্নয়ন কর্মসূচীর টেলি কনফারেন্স

s-6দিনাজপুর প্রতিনিধি: দিনাজপুর জেলা প্রশাসক আহমদ শামীম আল রাজী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষিত রূপকল্প ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়নে যে কর্মসূচী শুরু করেছে তা মানুষের দোরগোড়ায় পৌছে দিতে সকলকে মেধা ও দতা দিয়ে কাজ করতে হবে। তবেই দেশের মানুষের তথ্য প্রযুক্তির যুগোপযোগী তথ্য সেবা পেতে পারবে।
১১ মে রোববার দুপুরে দিনাজপুর জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে জেলা পর্যায়ে ফ্রিল্যান্সার টু অনট্রাপ্রণর উন্নয়ন কর্মসূচী লোগো উ্ম্মোচন ও উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের প্রস্তুতি সভায় সভাপতির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক অংশগ্রহণকারীদের উদ্দেশ্যে এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে জেলা পর্যায়ে ফ্রিল্যান্সার টু অনট্রাপ্রণর ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রামের অংশগ্রহণকারী সরকারি কর্মকর্তা, সরকারি বেসরকারি ব্যাংকার ও বিভিন্ন শ্রেণির উদ্যোক্তারা অংশগ্রকন করেন। অনুষ্ঠান উপলক্ষে টেলিকনফারেন্সে উদ্বোধন ঘোষনা করেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আব্দুল লতিফ সিদ্দিকী এ প্রকল্পের উদ্বোধন ঘোষণা করেন।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ডিজিটাল পদ্ধতিতে টেলিকনফারেন্সের মাধ্যমে অংশগ্রহণকারী সরকারি কর্মকর্তা ও বেসরকারি উদ্যোক্তারা সরাসরি দেখেন। টেলিকনফারেন্স উদ্বোধনী ঘোষনাকালে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জুনায়েত আহাম্মেদ পলক, উক্ত মন্ত্রনালয়ের তথ্য ও প্রযুক্তি বিভাগের সচিব মোঃ নজরুল ইসলাম খান।
দিনাজপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোঃ তৌফিক ইমাম জানান, জেলা পর্যায়ে এই কর্মসূচীতে অংশগ্রহণকারী দিনাজপুর জেলা ১৩টি উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা, সরকারি-বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ২২ জন শিক্ষক, সরকারি বেসরকারি পর্যায়ের ২৬ জন ব্যাংকার ও ৩৫ জন বেসরকারি পর্যায়ের উদ্যোক্তাদের সরকারের গৃহীত প্রকল্পের বিষয়গুলো বিশ্লেষণ করে বুঝিয়ে দেয়া হয়। এরপর তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় থেকে ডিজিটাল পদ্ধতির জ্ঞানভিত্তিক ও যুগোপযোগী চিঠিপত্র আদান প্রদান ছাড়াও দেশের তৃণমূল পর্যায়ে ইন্টানেটের মাধ্যমে উন্মক্ত তথ্য সরবরাহের প্রশিণ দেয়ার ব্যবস্থা নেয়া হবে। এ প্রকল্পের মাধ্যমে প্রশিণ নিয়ে বেসরকারি ভাবে উদ্যোক্তারা সাবলম্বী হয়ে বেকার জনগোষ্ঠীদের কর্মক্ষম করে গড়ে তুলতে পারবে। দেশের যুব সমাজকে আত্মনির্ভরশীল করে গড়ে তুলতে সরকারের এই মন্ত্রণালয় থেকে এ ধরনের কর্মসূচী গ্রহণ করা হয়েছে।
এ কর্মসূচী অংগ্রহণকারীদের সমন্বয়ে আলোচনা সভার মধ্য দিয়ে বেলা ৩টায় সমাপ্ত ঘোষনা করা হয়।

দিনাজপুরে বিএনসিসির ক্যাপসুল প্রশিক্ষনের উদ্বোধন
দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও, পঞ্চগড় ও নীলফামারী জেলার সমন্বয়ে ২৬টি স্কুল কলেজ হতে ৩১ জন মহিলা ক্যাডেটসহ ১২৬ জন ক্যাডেট’র অংশগ্রহনের মধ্য দিয়ে ৮ দিনব্যাপী বিএনসিসির ক্যাপসুল প্রশিক্ষন কর্মসূচীর উদ্বোধন ঘোষনা করা হয়েছে। রোববার বেলা ১১টায় দিনাজপুর সরকারী কলেজ মাঠে আয়োজিত ৪ মহাস্থান  ব্যাটালিয়ান, বিএনসিসি রংপুরের তত্তাবধানে ১১ মে হতে ১৮ মে পর্যন্ত ৮ দিনব্যাপী ক্যাপসুল প্রশিনের উদ্বোধন ঘোষণা করেন দিনাজপুর সরকারি কলেজের অধ্য অধ্যাপক মোঃ আবু বক্কার সিদ্দিক। এসময় অংশগ্রহনকারী বিএনসিসির সদস্যদের উদেশ্যে তিনি বলেন, বিএনসিসি প্রশিক্ষনে শারিরিক কসরত এর মাধ্যমে নিজের শারিরীক মানসিক বিকাশ ঘটাতে হবে। ৮ দিনব্যাপী প্রশিনে জ্ঞান অর্জন ও দক্ষতা বৃদ্ধির উপর তিনি জোর দেন। এই প্রশিনে অংশগ্রহনকারীরা ভবিষ্যৎ কর্মজীবনে তাদের অর্জিত জ্ঞান কাজে লাগাতে পারবে বলে আশাবাদ ব্যাক্ত করেন।
প্রশিক্ষন কর্মসূচীতে ৪ মহাস্থান ব্যাটালিয়ানের এ্যাডজুটেন্ট মেজর খন্দকার শাহরিয়ার আলম, দিনাজপুর সরকারি কলেজের লেঃ মোঃ রোজাইন, পিইউও মোঃ আব্দুল্লাহ আল ফুয়াত, পিইউও জেসমিন আক্তার, শাহিনা আক্তার বানুসহ একাধিক প্রশিক্ষক বক্তব্য রাখেন। প্রশিক্ষনার্থীদের মধ্যে ৪টি জেলার ২৬টি স্কুল ও কলেজ হতে আগত ৩১ জন মহিলা ক্যাডেটসহ ১২৬ জন ক্যাডেট অংশগ্রহণ করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ