• রবিবার, ০৩ জুলাই ২০২২, ০৫:৩১ পূর্বাহ্ন |

‘অনেক ইচ্ছা তোমার সাথে ঘর করার, কিন্তু তা আর হলোনা’

Lasনীলফামারী প্রতিনিধি: নীলফামারীতে শহরের এবাদত প্লাজাস্থ আবাসিক হোটেল অবকাশ থেকে পুলিশ সদস্য স্ত্রী রুবিনা আক্তার (২২) এর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার বিকেলে এই ঘটনা ঘটে। এঘটনায় পুলিশ কনস্টেবল মহিদুল ইসলামকে (২৬) আটক করা হয়েছে। রুবিনা দিনাজপুর জেলার বিরামপুর উপজেলার রতনপুর গ্রামের জামিরুল ইসলামের মেয়ে এবং আটকৃকত মহিদুল একই গ্রামের  মোসলেম উদ্দিনের ছেলে বলে জানান পুলিশ।
আবাসিক হোটেল অবকাশের ম্যানেজার আশেকুজ্জামান বিল্পব জানান, গত বুধবার রাত ১১টার দিকে নীলফামারীতে কর্মরত পুলিশ কনস্টেবল মহিদুল ইসলাম তার স্ত্রী রুবিনা আক্তারকে নিয়ে হোটেলের ৩১ নম্বর কক্ষে ওঠে। বৃহস্পতিবার সকালে মহিদুল তার স্ত্রীকে কক্ষে রেখে দড়জায় তালা দিয়ে বাইরে যান। এরপর দুপুর আড়াইটার দিকে হাতে ভাতের প্যাকেট নিয়ে হোটেলে আসেনে তিনি। এর কিছুক্ষণ পর এসে তিনি বলেন,‘আমার স্ত্রী আত্মহত্যা করেছে। আমি একটু থানায় যাচ্ছি।’ এ ঘটনা শুনে তিনি (ম্যানেজার) তাকে হোটেল থেকে যেতে না দিয়ে থানায় খবর  দেয়া হলে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধারসহ ওই কনস্টেবলকে আটক করে  থানায় নিয়ে যায়।
নীলফামারী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) বাবুল আখতার জানান, হোটেলের কক্ষ থেকে গলায় ওড়না দিয়ে ফ্যানের সাথে রুবিনার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। এসময় ওই কক্ষ থেকে স্বামীকে উদ্দেশ্য করে রক্ত দিয়ে লেখা একটি চিরকুট উদ্ধার করা হয়েছে।  উদ্ধারকৃত  চিরকুটে  ‘অনেক ইচ্ছা তোমার সাথে ঘর করার, কিন্তু তা আর হলোনা। ভালো থেকো তুমি।’  এমন  ভাষা  লিখা ছিল। প্রাথমিক ভাবে  রুবিনার বাম হাতের পাঁচ এবং ডান হাতের তিন আঙ্গুলে ক্ষতের চিহৃ পাওয়া গেছে।ধারণা করা হচ্ছে আঙ্গুলের ক্ষতস্থানের ক্ষরণকৃত রক্ত দিয়ে ওই চিরকুটটি লেখা হয়েছে। এঘটনায় পুলিশ কনস্টেবল মহিদুল ইসলামকে আটক ও লাশ উদ্ধার করে রুবিনার পরিবারের সদস্যদের খবর দেয়া হয়েছে। ওই পুলিশ কনস্টেবল সহকারী পুলিশ সুপার (হেড কোয়াটার) মোহাম্মদ জাকারিয়ার দেহরক্ষী ছিলেন।
এদিকে খবর পেয়ে পুলিশ সুপার জোবায়েদুর রহমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাতেম আলী, সহকারি পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) শফিউল ইসলাম, সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহজাহান পাশা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন বলে জানান ওসি (তদন্ত)।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ