• বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১২:৪৫ অপরাহ্ন |
শিরোনাম :
ইউনূস, হিলারি ও চেরি ব্লেয়ারের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার দাবি সংসদে মার্কেট-শপিং মলে মাস্ক বাধ্যতামূলক করে প্রজ্ঞাপন খানসামায় র‌্যাবের অভিযান ইয়াবাসহ দুই মাদককারবারী গ্রেপ্তার ডোমার ও ডিমলায় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ ১০ উদ্যোগ নিয়ে কর্মশালা নীলফামারীতে ৫ সহযোগীসহ কুখ্যাত চোর ফজল গ্রেপ্তার সৈয়দপুরে তথ্যসংগ্রহকারী ও সুপারভাইজারদের দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত জয়পুরহাট বিনা খরচে আইনের সেবা পেতে সেমিনার শিক্ষক লাঞ্চনা ও হেনস্তার বিরুদ্ধে সৈয়দপুরে উদীচী শিল্পী গোষ্ঠীর প্রতিবাদ সমাবেশ সৈয়দপুরে শহীদ আমিনুল হকের স্মরণসভা অনুষ্ঠিত ফুলবাড়ীতে বিনামূ‌ল্যে বীজ ও সার বিতরণ

এসএসসি’র ফল প্রকাশ: দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের পাশের হার ৯৩.২৬

1111দিনাজপুর প্রতিনিধি: দিনাজপুর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত ২০১৪ সালের এসএসসি পরীার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে। গড় পাশের হার ৯৩.২৬ শতাংশ। শনিবার দুপুর ১ টায় দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মোঃ তোফাজ্জুর রহমান আনুষ্ঠানিকভাবে সাংবাদিকদের নিকট ফলাফল হস্তান্তর করেন।
দিনাজপুর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত ২০১৪ সালের এসএসসি পরীক্ষায় ৮টি জেলার ২ হাজার ৫১০টি বিদ্যালয় থেকে ২২৪টি কেন্দ্রের মাধ্যমে ১ লাখ ১৮ হাজার ৪৩৮ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহন করে। এদের মধ্যে ১ লাখ ১০ হাজার ৪৫৮জন পরীক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়েছে। গড় পাশের হার ৯৩.২৬ ভাগ। ছাত্রদের পাশের হার ৯৩.১১ ও ছাত্রীদের পাশের হার ৯৩.৪২ ভাগ। জিপিএ- ৫ পেয়েছে ১৪ হাজার ৮২৭ জন শিক্ষার্থী।
বিজ্ঞান বিভাগে ৪৬ হাজার ২৭৫ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে উত্তীর্ন হয়েছে ৪৪ হাজার ৮০৩ জন। এদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১২ হাজার ৯৩৩ জন। বিজ্ঞান বিভাগের গড় পাশের হার ৯৬.৮২ ভাগ। মানবিক বিভাগে ৬৪ হাজার ৫২০ জনের মধ্যে ৫৮ হাজার ৫৭৭ জন পরীক্ষার্থী উত্তীর্ন হয়েছে। এদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১১৭৯ জন। মানবিক বিভাগে গড় পাশের হার ৯০.৭৯ ভাগ।
ব্যবসায়  শিক্ষা বিভাগে ৭ হাজার ৬৪৩ জনের মধ্যে উত্তীর্ন হয়েছে ৭ হাজার ৭৮ জন। ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৭১৫ জন। এ বিভাগে গড় পাশের হার ৯২.৬১ ভাগ। বিজ্ঞান, মানবিক ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে গড় পাশের হার ৯৩.২৬ ভাগ।
ফলাফল প্রকাশ করে দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মোঃ তোফাজ্জুর রহমান বলেন, ২০১৩ সালের তুলনায় এবার ফলাফল খুব ভাল হয়েছে। তিনি জানান, বোর্ডের চেয়ারম্যানের নিবিড় তত্তাবধান ও অন্যান্য কর্মকর্তা এবং শিক্ষকদের ঐকান্তিক প্রচেষ্ঠায় ছাত্র-ছাত্রীরা ভাল ফলাফল করতে সক্ষম হয়েছে। আগামীতে আরো ভাল ফলাফল উপহার দেয়ার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন তিনি। SAM_1445
তিনি বলেন, ২০০৯ সালে ১ লাখ ২ হাজার  ৬৫১ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহন করে। এদের মধ্যে উত্তীর্ন হয় ৬৪ হাজার ৯১৩ জন এবং পাশের হার ছিল ৬৩.৫৮ ভাগ। ২০১০ সালে ১ লাখ ১৭ হাজার ৭৩৪ জন পরীক্ষার্থী মধ্যে ৮৩ হাজার ৯৭৭ জন উত্তীর্ন হয়। পাশের হার ছিল ৭১.৭০ ভাগ। ২০১১ সালে ১ লাখ ২৬ হাজার ২৪৮ জনের মধ্যে উত্তীর্ণ হয় ৯৬ হাজার ৫৭৯ জন। ২০১২ সালে ১ লাখ ২৫ হাজার ২৭২ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে উত্তীর্ণ হয় ১ লাখ ৭ হাজার ৯০৯ জন। পাশের হার ৮৭.১৬ ভাগ। ২০১৩ সালে ১ লাখ ১ হাজার ৯৪৬ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে উত্তীর্ণ হয় ৯১ হাজার ৮৬০ জন। পাশের ছিল ৯০. ৬০ ভাগ। ২০০৯ সালে শতভাগ পাশকৃত স্কুলের সংখ্যা ছিল ৩৪টি, ২০১০ সালে ৪৬টি এবং ২০১১ সালে ৪৮টি ২০১২ সালে শতভাগ পাশকৃত স্কৃলের সংখ্যা দাড়িয়েছে ২৩১টিতে, ২০১৩ সালে ৪৫৪টি এবং ২০১৪ সালে শতভাগ পাশকৃত স্কুলের সংখ্যা ৬৬১টিতে দাড়িয়েছে।
উল্লেখ্য, দিনাজপুরে শিক্ষাবোর্ড প্রতিষ্ঠার পর এটি এ বোর্ডের অধীনে ষষ্ঠ বারের মত এসএসসি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ফলাফল ঘোষনা করার সময় দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের সচিব এম এ মজিদ, উপ-পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (উচ্চ মাধ্যমিক) খ ম রফিকুল ইসলাম, উপ-পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (মাধ্যমিক) মোঃ আরিফুল ইসলামসহ অন্যান্য কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ