• শনিবার, ০২ জুলাই ২০২২, ০২:৩০ অপরাহ্ন |

ডোমারে নববধুর মৃত্যু নিয়ে রহস্যের জট

21.05.14 picture-1   asfinaডোমার (নীলফামারী) প্রতিনিধি: রহস্যের জট বেঁধেছে নীলফামারীর ডোমারে নববধু আছফিনা বেগমের(১৮) মৃত্যু ঘিরে। মঙ্গলবার রাতে ডোমার থানা পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে বুধবার দুপুরে নীলফামারী আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে ময়না তদন্ত করায়। নিহত আছফিনা ডোমার উপজেলার ডোমার সদর ইউনিয়নের চিকনমাটি হুজুরপাড়া গ্রামের আব্দুল আউয়ালের মেয়ে।
নিহতের পারিবারিক সুত্র জানায়, চলতি বছরের মাসের ১৮এপ্রিল ডোমার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পাড়া রেলস্টেশন এলাকার মোবারক হোসেনের ছেলে আব্দুর রহমানের(২৮) সাথে বিয়ে হয় আছফিনার। গত ১০মে নিহতের শ্বশুড় মোবারক হোসেন আছফিনাকে তার বাবার বাড়িতে রেখে যান অসুস্থ্য অবস্থায়। চিকিৎসা করানোর পরও অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় গত সোমবার পঞ্চগড় জেলার দেবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করানো হয় তাকে। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার বিকেলে মারা যায় আছফিনা।
নিহতের চাচা মাদ্রাসা শিক্ষক খায়রুল আলম অভিযোগ করেন, বাবার বাড়িতে আসার পর আছফিনাকে নির্যাতন করা হয়েছিল বলে জানিয়েছিলো সে। তাকে নাকি জোড় করে জুস জাতীয় পানিয় পান করান স্বামী আব্দুর রহমান। তারপর থেকে সে অসুস্থ্য হয়ে পড়ে। নিহতের আরেক চাচা নুরুন্নবী বলেন, বিয়ের সময় যৌতুক হিসেবে ৮০হাজার টাকার মধ্যে ৫০হাজার টাকা পরিশোধ করা হয় ছেলের পরিবারের কাছে। তিনি বলেন, জানতে পেরেছি বিয়ের পর ছেলে এবং তার পরিবারের লোকজন নববধু আছফিনাকে তারা নাকি পছন্দ করেন নি। সে হিসেবে ধারণা হচ্ছে তাকে কোন ভাবে মেরে ফেলার প্রক্রিয়া করেছিলো।
ডোমার ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড সদস্য সোলায়মান আলী জানান, মঙ্গলবার বিকেলে মেয়ে পরিবারের লোকজনদের সাথে কথা বলে বিষয়টি শুনেছি। তারা স্বামী ও শ্বশুড়বাড়ির লোকজনের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ করেছেন। রাতে তারা বিষয়টি পুলিশকে জানালে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। যোগাযোগ করা হলে ডোমার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) কফিল উদ্দিন জানান, হত্যার বিষয়ে সুস্পষ্ট কোন অভিযোগ করা হয়নি নিহতের পরিবারের পক্ষ্য থেকে। থানায় লিখিত ভাবে জানানোর পর নিহতের লাশ উদ্ধার করে বুধবার নীলফামারী আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে ময়না তদন্ত করা হয়। ময়না তদন্তের রিপোর্ট আসার পর নিহতের সঠিক কারণ জানা যাবে। যদি হত্যার ঘটনা হয়ে থাকে তাহলে জড়িতদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ