• শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ১০:১৫ পূর্বাহ্ন |

সুন্দরবন জ্বলছে : ৫ একর বনভূমি ভস্মীভূত

Agunবাগেরহাট: পূর্ব সুন্দরবন বিভাগের চাঁদপাই রেঞ্জের গুলিশাখালী ও আমুরবুনিয়া ফরেষ্ট ক্যাম্পের মাঝামাঝি বাইশেরছিলার গহিন অরণ্যে লাগা আগুন আরো ছড়িয়ে পড়ছে। ইতিমধ্যে পাঁচ একর বনভূমি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে জানা গেছে।

বুধবার রাত থেকে মোরেলগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসসহ বনরক্ষীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে এ প্রতিবেদন লেখা সময় পর্যন্ত আগুন জ্বলছিল বলে এলাকাবাসী জানিয়েছেন। তবে আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে বলে বন বিভাগের কর্মকর্তারা দাবি করেছেন।

এলাকাবাসী জানান, সুন্দরবনের ভেতর থেকে আগুন দাউ দাউ করে জ্বলে উঠছে। ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা আগুন নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছেন। কিন্তু তা নিয়ন্ত্রণের বাইরে রয়েছে।

মোরেলগঞ্জ ফায়ার স্টেশনের অফিসার আরিফুল হক জানান, বুধবার বিকেল ৫টার দিকে বনজীবীরা সুন্দরবনের গাছপালায় দাউ দাউ করে আগুন জ্বলতে দেখেন। পরে তারা বন বিভাগকে খবর দেন। খবর পেয়ে মোরেলগঞ্জ ও শরণখোলা ফায়ার সার্ভিসের সদস্যদের নিয়ে চাঁদপাই রেঞ্জ কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ ঘটনাস্থলে ছুটে যান।

ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তারা ধারণা করছেন, বনজীবীদের বিড়ি-সিগারেটের আগুন অথবা মৌয়ালদের অসাবধানতার কারণে এই আগুন লাগতে পারে।

মোরেলগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার আরিফুল হক বলেন, ইতিমধ্যে প্রায় পাঁচ একর বনভূমি ভস্মীভূত হয়েছে।

পূর্ব সুন্দরবন বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা (ডিএফও) আমীর হোসাইন চৌধুরী সুন্দরবনের আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়েছে বলে দাবি করেছেন।

ওই কর্মকর্তা আরো জানান, পলি জমে পূর্ব সুন্দরবনের মরাভোলা নদীর দুই পাড় উঁচু হয়ে যাওয়ায় শুষ্ক মৌসুমে পাতা পড়ে ও বনের গাছপালার শিকড় পচে একধরনের গ্যাসের সৃষ্টি হয়। কোনো বনজীবীর বিড়ি, সিগারেট বা মৌয়ালদের ফেলা আগুন ওই গ্যাসের সংস্পর্শে এলে বনে আগুন ধরে যায়। ওই এলাকায় প্রায় প্রতিবছরই এ ধরনের ঘটনা ঘটে বলে জানান তিনি।

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের সুন্দরবন ও উড টেকনোলজি বিভাগের অধ্যাপক ড. মাহামুদ হোসেন জানান, যেকোনো ধরনের আগুন সুন্দবনের জন্য ক্ষতির কারণ। বিশেষ করে, শুষ্ক মৌসুমে বনে আগুন লাগলে দ্রুত ওই আগুন ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা থেকে যায়। বনের যে এলাকা আগুনে পুড়ে গেছে ওই এলাকায় জোয়ার-ভাটা না থাকলে নতুন করে ম্যানগ্রোভ জম্মাতে সময় লেগে যাবে। এ জন্যে বন বিভাগকে যথেষ্ট সতর্কতার সঙ্গে আগুন নেভানোর পরামর্শ দেন ড. মাহামুদ হোসেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ