• রবিবার, ০৩ জুলাই ২০২২, ০৬:২০ পূর্বাহ্ন |

সৈয়দপুরে ধর্ষণ মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান কারাগারে

Ziko Ahmedসিসিনিউজ: বিয়ের প্রলোভন দিয়ে স্কুল শিক্ষিকাকে ধর্ষনের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার কামারপুকুর ইউপি চেয়ারম্যান জিকো আহমেদকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।
আজ মঙ্গলবার দুপুরে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করলে ওই আদালতের বিচারক হাসানুজ্জামান জামিন না মঞ্জুর করে জিকো আহমেদকে জেলহাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন।
গত বছরের ২৮ নভেম্বর জিকো আহমেদের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা করেন কামারপুকুর কিন্ডার গার্টেন স্কুলের ওই শিক্ষিকা।
মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানা যায়, ওই শিক্ষিকার স্বামী বিদেশে থাকার সুযোগে চেয়ারম্যান জিকো আহমেদ তার সাথে সুসম্পর্ক তৈরী করে। পরবর্তীতে তা প্রেমের সম্পর্কে রূপ নেয় এবং জোরপূর্বক ওই শিক্ষিকার স্বামীকে তালাক দিতে বাধ্য করে। পরে সিলেটের শাহজালাল মাজারে গিয়ে তারা বিয়ে করে। অভিযোগ রয়েছে, পরবর্তীতে জিকো আহমেদ ভূয়া কাবিননামা তৈরী করে এবং ওই শিক্ষিকাকে নিয়ে সৈয়দপুরের কামারপুকুরে একটি ভাড়া বাসায় স্বামী-স্ত্রীর পরিচয়ে বসবাস করতে থাকে।
এ ঘটনার কিছুদিন পর জিকো আহমেদ শিক্ষিকাকে না জানিয়ে গত বছরের ২১ নভেম্বর অন্য একটি মেয়েকে বিয়ে করে। দ্বিতীয় বিয়ের বিষয়ে ওই শিক্ষিকা চেয়ারম্যান জিকো আহমেদের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি তোমাকে বিয়ে করিনি। আমি ভূয়া কাবিননামা তৈরী করে তোমাকে বিয়ে করেছিলাম। ফলে স্ত্রী স্বীকৃতির দাবিতে ওই শিক্ষিকা ওই বছরের ২৮ নভেম্বর জিকো আহমেদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ