• বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১০:১২ অপরাহ্ন |
শিরোনাম :
শিক্ষককে পিটিয়ে হত্যা: প্রধান আসামি জিতু গ্রেপ্তার সৈয়দপুরে কিশোরী ধর্ষণের ঘটনায় বিজিবি সদস্যকে আত্মসমর্পণের নির্দেশ শ্রেণিকক্ষে রাবি শিক্ষিকাকে মারতে গেলেন ছাত্র! অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার অভিযােগ এনজিও’র দুই কর্মকর্তা গ্রেফতার জলঢাকায় মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার রোধকল্পে সমন্বিত কর্মপরিকল্পনা প্রণয়নে কর্মশালা ইউনূস, হিলারি ও চেরি ব্লেয়ারের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার দাবি সংসদে মার্কেট-শপিং মলে মাস্ক বাধ্যতামূলক করে প্রজ্ঞাপন খানসামায় র‌্যাবের অভিযান ইয়াবাসহ দুই মাদককারবারী গ্রেপ্তার ডোমার ও ডিমলায় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ ১০ উদ্যোগ নিয়ে কর্মশালা নীলফামারীতে ৫ সহযোগীসহ কুখ্যাত চোর ফজল গ্রেপ্তার

খানসামায় কলেজ ছাত্রী নিখোঁজ

Nikojসিসিনিউজ: দিনাজপুরের খানসামা উপজেলায় মানতাসা খাতুন (১৮) নামের এক কলেজ ছাত্রী চার দিন ধরে নিখোঁজ হওয়ার সংবাদ মিলেছে। তবে ওই ছাত্রীর পরিবারের পক্ষ থেকে মানতাসা অপহরণ হয়েছে বলে থানায় একটি অভিযোগ করেছে।
সূত্র মতে, উপজেলার ভেড়ভেড়ি ইউনিয়নের তেবাড়িয়া গ্রামের হাফিজুল হক চৌধুরীর মেয়ে মানতাসা। সে উপজেলার জমির উদ্দিন শাহ উচ্চ বালিকা বিদ্যালয় ও কলেজের এইচএসসি ২য় বর্ষের ছাত্রী। গত ২৪ মে সকালে কলেজ যাওয়ার পথে সে অপহরণ হয়। পরিবারের অভিযোগ, একই উপজেলার আঙ্গারপাড়া ইউনিয়নের পাকেরহাট গ্রামের ফুলশা পাড়ার মমতাজ উদ্দিনের পুত্র নুর ইসলাম তার দলবল নিয়ে মানতাসাকে অপহরণ করে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যায়। পরে মানতাসার পরিবারের কাছে ০১৭৩৭০৩৪০০৬ নম্বর মোবাইল ফোন থেকে তার মুক্তিপণ হিসেবে ১০ লাখ টাকা দাবি করে।
নির্ভরযোগ্য একটি সূত্র মতে, নুর ইসলামের সাথে মানতাসার দীর্ঘদিনের প্রেমের সম্পর্ক রয়েছে। কিন্তু মানতাসার পরিবার তা মেনে না নেয়ায় মনের ক্ষোভে সে বাড়ি ছাড়া হয়েছে।
তবে নুর ইসলামের পরিবার জানায়, সমাজে হেয় প্রতিপন্ন করার জন্য মেয়ের পরিবার অপহরণের ঘটনা সাজিয়েছে। এক প্রশ্নের জবাবে তারা জানায়, নুর ইসলাম কোচিং করার জন্য বর্তমানে রাজশাহীতে রয়েছে।
এ ব্যাপারে খানসামা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কৃষ্ণ সরকারের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, মেয়ের বাবা মৌখিকভাবে অপহরণের ঘটনাটি অবগত করেছেন। তবে লিখিতভাবে কোন অভিযোগ না করায় আমরা কোন পদপে নিতে পারছি না।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ