• সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ০৫:৫০ অপরাহ্ন |

সৈয়দপুর পৌরসভার কর বকেয়া থাকায় উন্নয়ণে বাধাগ্রস্ত

Saidpur Purosovaসিসিনিউজ: বছরের পর বছর করদাতারা বকেয়া কর পরিশোধ না করায় অর্থ সংকটে পড়েছে নীলফামারীর প্রথম শ্রেনীর সৈয়দপুর পৌরসভার উন্নয়ন কর্মকান্ড। বকেয়া টাকা আদায় না হওয়ায় পৌরসভার রাস্তাঘাট ও ড্রেনেজ ব্যবস্থার মত গুরুত্বপূর্ণ উন্নয়ন কাজ মন্থর হয়ে পড়েছে। এতে নতুন করে ড্রেন নির্মাণ ও খানাখন্দে ভরা সড়কের সংস্কার হচ্ছে না। ফলে প্রতিনিয়ত দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে পৌর নাগরিকদের।
সূত্র জানায়, সৈয়দপুর পৌরসভা প্রথম শ্রেণিতে উন্নীত হলেও নাগরিক সুবিধা সরকারি বাজেটের অভাবে দিন দিন সংকুচিত হচ্ছে। পৌর কর আদায় না হওয়ায় নাগরিক সুবিধা বাড়াতে পারছে না পৌর পরিষদ। পৌরসভার উন্নয়ন ও সেবাখাত চরম অর্থ সংকটে ভুগছে। কর খেলাপি ৫২ প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সরকারি প্রতিষ্ঠান রয়েছে ৮টি এবং বাকি বেসরকারি প্রতিষ্ঠান রয়েছে ১৫টি এবং ব্যক্তি মালিকাধীন বড় বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান রয়েছে ২৯টি। এর মধ্যে সর্বোচ্চ কর বকেয়া রয়েছে সরকারি প্রতিষ্ঠানের কাছে। শুধুমাত্র ৮টি সরকারি প্রতিষ্ঠানের বকেয়ার পরিমাণ হচ্ছে ৭ কোটি ৩৭ লাখ ৮৭ টাকা। এর মধ্যে রেলওয়ের কাছে পাওনা রয়েছে ৭ কোটি ২৮ লাখ ৫১ হাজার টাকা, উপজেলা পরিষদের কাছে ৪ লাখ ৯৫ হাজার টাকা বকেয়া রয়েছে।
সৈয়দপুর পৌরসভার মেয়র অধ্যক্ষ আমজাদ হোসেন সরকার জানান, মোটা অংকের কর বকেয়া পড়ায় প্রতিশ্র“তিমত উন্নয়ন কাজ করতে পারছে না পৌর পরিষদ। পৌরসভার উন্নয়ন ও সেবা খাতের বড় সংকট দেখা দিয়েছে অর্থের। এছাড়া স্থানীয় সরকারের বৈষম্যমূলক নীতির কারণে সৈয়দপুর পৌরসভা উন্নয়নের অর্থ বরাদ্দ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। এত ঝুট ঝামেলা নিয়ে পৌর পরিষদ নাগরিক সেবা বাড়াতে তৎপর রয়েছে। তিনি কর পরিশোধে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ