• শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২, ১২:৪৫ পূর্বাহ্ন |

যশোরের আকাশে আবারও উড়ছে বিশ্বকাপের পতাকা

Flagসিসিনিউজ: যশোরের আকাশে পত্‌ পত্‌ করে ওড়ছে বিশ্ব ফুটবলের ফেভারিট বিভিন্ন দেশের পতাকা আর ব্যানার-ফেস্টুন। প্রিয় দলের পতাকা আর ব্যানার-ফেস্টুন ওড়াতে পেরে খুশি যশোরের ফুটবলপ্রেমী লাখো মানুষ। খুশি পতাকা আর ব্যানার-ফেস্টুন তৈরি ও বিপণনের সঙ্গে জড়িত মানুষরাও। খুশি সাধারণ দর্শক শ্রোতারাও। আনন্দ ছড়িয়ে পড়েছে জেলার সব ফুটবল ক্লাব গুলোতেও। দর্শক আকৃষ্ট করতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন ফুটবলপ্রেমী সংগঠকরাও। বড় পর্দায় খোলা আকাশের নিচেয় প্রিয় দলের ফুটবল খেলা উপভোগের ব্যবস্থার পাশাপাশি খাবার দাবার নিয়েও ব্যতিব্যস্ত হয়ে পড়েছেন যশোরের বিভিন্ন এলাকার অতি উৎসাহী ফুটবলপ্রেমীরা। এদিকে বিশ্বকাপ ফুটবলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আগেই যশোরের ঈদগাহ মাঠে অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো এবারের বিশ্বকাপের টপ ফেভারিট ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনার সমর্থকদের মধ্যে এক প্রীতি ফুটবল ম্যাচ। যশোর জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ইয়াকুব কবীর প্রধান অতিথি হিসেবে এ টুর্নামেন্টের উদ্বোধন করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার হ্যান্ডবল পরিষদের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন ও সাধারণ সম্পাদক আক্তারুজ্জামান। এস এইচ বিল্ডার্সের স্বত্বাধিকারী রফিকুল ইসলাম হিরোকের পৃষ্ঠপোষকতায় দু’দলের জার্সি গায়ে জড়িয়ে সাংবাদিকসহ বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ এ টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণ করেন।  এক ঘণ্টার এ টুর্নামেন্টটি শেষ পর্যন্ত গোলশূন্য ড্র দিয়ে শেষ হয়। এর আগে শহরে আর্জেন্টিনা সমর্থক গোষ্ঠীর ব্যানারে এক বিশাল আনন্দ র‌্যালি শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলো প্রদক্ষিণ করে। সব কিছু মিলিয়ে যশোরের ফুটবলপ্রেমীরা আবারও বিশ্বকাপ ফুটবল উপভোগের আনন্দে মেতে উঠেছেন।
গত ৮ই জুন যশোরের জেলা প্রশাসক মোস্তাফিজুর রহমান যশোরবাসীকে অনুরোধ জানিয়ে জনস্বার্থে একটি বিপ্তপ্তি প্রচার করেন। জেলা প্রশাসকের পক্ষে জেলা তথ্য অফিস এ অনুরোধকে আদেশ মনে করে শহরে মাইকিংও করেন। পাশাপাশি পুলিশ প্রশাসনও জেলা প্রশাসকের ওই অনুরোধকে আইনি রূপ দিতে  রাস্তায় নামে। জেলা প্রশাসকের পক্ষে শিক্ষা ও কল্যাণ শাখা থেকে প্রচারিত ওই বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, ‘সর্বসাধারণের অবহিত করা যাচ্ছে যে, বাংলাদেশ পতাকা বিধিমালা ১৯৭২ এর বিধি ৯(৪) এ দেশের  অভ্যন্তরে কোন ভবনে বা যানবাহনে কোন বিদেশী রাষ্ট্রের পতাকা উত্তোলন করা যাবে না’ মর্মে উল্লেখ আছে। আসন্ন বিশ্বকাপ ফুটবলকে কেন্দ্র করে যশোরের বিভিন্ন ভবনে বিদেশী রাষ্ট্রের পতাকা উত্তোলন করা হয়েছে যা বাংলাদেশ পাতকা বিধিমালা  ১৯৭২ এর উক্ত বিধির পরিপন্থি। বিশ্বকাপ ফুটবলে কোন দলকে সমর্থনের জন্য সে দেশের পতাকা ছাড়া প্লাকার্ড বা অন্য কোন কিছু ব্যবহার করাসহ দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে নিজ দেশের জাতীয় পতাকাকে সম্মান প্রদর্শন করে সকল বিদেশী রাষ্ট্রের পতাকা আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সরিয়ে নেয়ার জন্য যশোরবাসীকে  অনুরোধ জানানো হলো।’ জেলা প্রশাসকের পক্ষে প্রচারিত ওই বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের পর পরই জেলা শহর ছাড়াও বিভিন্ন উপজেলা শহরের বিভিন্ন ভবন ও রাস্তার পাশে টাঙানো ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, মেক্সিকো, দক্ষিণ কোরিয়া, জাপান, জার্মানি, উরুগুয়ে, ইংল্যান্ড,  ক্রোয়েশিয়া, ক্যামেরুন, সুইজারল্যান্ড, ফ্রান্স, স্পেন, হল্যান্ড, ইতালি, ইরান, নাইজেরিয়াসহ বিশ্বকাপের ফেভারিট বিভিন্ন দলের পতাকা নামানেয় তোড়জোড় শুরু হয়। ২৪ ঘণ্টার আগেই ফাঁকা হয়ে যায় যশোর শহর ও শহরতলি এবং বিভিন্ন উপজেলার বিভিন্ন ভবন ও রাস্তাগুলো। মুহূর্তে ফিকে হয়ে যায় ফুটবলপ্রেমীদের সব আনন্দ উৎসব। হতাশায় ডুবতে বসে ফুটবল ক্লাব আর তাদের দর্শক শ্রোতারা। বেকার হয়ে যায় এসব পতাকা আর ব্যানার ফেস্টুন তৈরিতে নিয়োজিত শ্রমিক কর্মচারীরা। একপর্যায়ে জেলা প্রশাসকের ওই অনুরোধকে ভিন্নভাবে গ্রহণ করে ফুটবলপ্রেমীরা। প্রিয় দলের পতাকা নিয়ে আনন্দ উল্লাসের ব্যত্যয় ঘটায় তারা তা সহজে মেনে নিতে পারেনি। এ নিয়ে দৈনিক মানবজমিনসহ বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় ব্যাপক লেখালেখি শুরু হয়। টিভি মিডিয়াগুলোতেও সচিত্র সংবাদ প্রকাশিত হয়। এক পর্যায়ে সরকারের জনপ্রশাসন মন্ত্রনালয়সহ বিভিন্ন দপ্তর বিব্রতকর পরিস্থিতির মুখে পড়েন। একপর্যায়ে সাধারণ মানুষের অনুভূতিকে শ্রদ্ধা জানিয়ে গতকাল বিকাল থেকে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে কিছুটা নমনীয় মনোভাব প্রদর্শন করা হয়। এ সংবাদ পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ফুটবলপ্রেমীরা আনন্দ-উল্লাসে ফেটে পড়েন। মুহূর্তে শহর ও শহরতলির বিভিন্ন ভবনে পত্‌ পত্‌ করে উড়তে শুরু করে প্রিয় ও ফেভারিট দলের পতাকা। গত দু’দিন ধরে ফুটবল প্রিয় মানুষের মনে যে ক্ষোভ ও হতাশা বাসা বেঁধে ছিল গতকাল বিকাল থেকে তা দূর হতে শুরু করেছে। এদিকে জেলা প্রশাসকের এ নমনীয় মনোভাবকে স্বাগত জানিয়েছেন যশোরের ফুটবল অঙ্গনের কর্মকর্তা, কর্মচারী ও খেলোয়াড়বৃন্দ। একই সঙ্গে শহরে আনন্দ মিছিল করে তারা জেলা প্রশাসককে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাদের অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার জন্য। জেলা ক্রীড়া সংস্থার হ্যান্ডবল পরিষদের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন মানবজমিনকে বলেন, জাতীয় পতাকা আইনের প্রতি সম্মান দেখিয়ে জেলা প্রশাসক যে অনুরোধ করেছিলেন তার প্রতি শ্রদ্ধা রেখে দর্শকরা তাদের প্রিয় দলের পতাকা নামিয়ে ফেলেছিলেন ঠিকই, কিন্তু তাদের মনে এক ধরনের কষ্ট বিরাজ করছিল। জেলা প্রশাসক মহোদয় লাখো ফুটবল ভক্তের সেই মনোবেদনা বুঝতে পেরে ক্রীড়াসংস্থাসহ বিভিন্ন পর্যায়ে কথা বলে কিছুটা নমোনীয় মনোভাব প্রদর্শন করায় জেলার ক্রীড়ামোদি লাখো মানুষ খুব খুশি হয়েছে। আমরা দেশের জাতীয় পতাকার প্রতি সর্বোচ্চ সম্মান প্রদর্শনে কখনও কার্পণ্য করি না। আবার বিদেশী পতাকা নিয়ে বেশী মাত্রার বাড়াবাড়ি করাটাও ঠিক নয়। তারপরও প্রতি ৪ বছর পর পর যে বিশ্বকাপ ফুটবলের আসর বসে সে সময় এদেশের কোটি কোটি ফুটবলপ্রেমী মানুষ তাদের প্রিয় দলের পতাকা, ব্যানার, ফেস্টুন, টিশার্ট ইত্যাদি নিয়ে আনন্দে মেতে ওঠেন । এর মাধ্যমে প্রমাণ হয় এদেশের মানুষ কতটা ক্রীড়াপ্রেমী। ফলে যে কোন কারণেই হোক জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে যে অনুরোধ করা হয়েছিল তার প্রতি আমরা যেমন সম্মান দেখিয়েছিলাম তেমনি ফুটবলপ্রেমীদের আবেগ আর অনুভূতি উপলব্ধি করে জেলা প্রশাসক তার অবস্থান থেকে কিছুটা হলেও সরে এসেছেন এজন্য তাকেসহ তার গোটা প্রশাসনকে আমরা জেলা ক্রীড়া সংস্থার পক্ষ থেকে অভিনন্দন জানাচ্ছি। এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে জেলা প্রশাসক মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, মানুষের অনুভূতিতে আঘাত দেয়ার কোন ইচ্ছা আমাদের নেই। আমরা কেবল আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হতে যশোরবাসীকে অনুরোধ করেছিলাম। যশোরের লাখো মানুষ আমাদের অনুরোধ রক্ষা করে যে ভাবে সাড়া দিয়েছিলেন তার জন্য তারা ধন্যবাদ পাওয়ার যোগ্য। তবে এ নিয়ে কিছুটা হলেও কোন কোন মহল ব্যথিত হচ্ছিলেন তা বুঝতে পারছিলাম। তবে আমরা কিন্তু কাইকে এ ব্যাপারে বাধ্য করিনি। তবে মানুষ স্বতস্ফুর্ত ভাবে আজ বিকেল থেকে আবারও তাদের প্রিয় দলের পতাকা ওাচ্ছেন। আনন্দ-উল্লাস করছেন। রাত জেগে বড় পদায় মাল্টিমিডিয়া প্রজেক্টর ব্যবহার করে খেলা উপভোগ করবেন। এসব কিছুই মানুষের স্বাধীনতার অংশ। আমরা তাদের অনুভূতি বুঝি। ফলে যেহেতু মানুষ স্বতঃস্ফূর্তভাবে তাদের প্রিয় সব দলের পতাকা উড়চ্ছে । ফলে এ বিষয়ে আমাদের পক্ষ থেকে কোন বাধা নিষেধ নেই। মানবজমিন


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ