• বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ০৫:২১ অপরাহ্ন |

উৎকৃষ্ট ব্যায়াম সাঁতার

suimigস্বাস্থ্য ডেস্ক: সাঁতার এক ধরনের কৌশল যার দ্বারা মানুষ ও অন্যান্য প্রাণী তাদের শরীরের অঙ্গ সঞ্চালনের মাধ্যমে পানিতে বিচরণ করতে পারে। সাঁতার একটি উপযুক্ত ব্যায়াম। প্রখর রোদে গরমের সময় ঠান্ডা পানিতে ডুব দিতে কে না ভালোবাসে।
দৈনন্দিন কাজকর্মের অবসাদ দূর করতে সাঁতারের জুড়ি নেই। সেই সঙ্গে মনকেও করে তোলে প্রশান্ত। পুকুর, নদী অথবা শহরের সুইমিং পুল যে কোনো জায়গায় সাঁতার কাটা যেতে পারে। আপনি পানিতে যখন সাঁতার কেটে ভেসে বেড়ান তখন আপনার শরীরের সব অঙ্গ কোনো প্রচেষ্টা ছাড়াই ব্যায়াম করে যাচ্ছে।
সাঁতার একটি উৎকৃষ্ট মানের ব্যায়াম। দিনে এক ঘণ্টা এর অনুশীলনের ফলে সর্বোচ্চ ৫০০ কিলো ক্যালোরি পর্যন্ত ঝরিয়ে ফেলা সম্ভব।
সাঁতারের সময় পানির তরলতা শরীরের ওপরে মাধ্যাকর্ষণ শক্তির প্রভাব প্রতিহত করে, ফলে শরীরের ওপরে বেশি চাপ পড়ে না। এ কারণে অনেক সময় ধরে সাঁতার কাটলেও অবসাদবোধ তুলনামূলক কম হয়।
সাঁতার একটি অ্যারোবিক এক্সারসাইজও বটে। সাঁতার কাটার সময় বিশ মিনিট সময় ধরে একই গতিতে, একই দূরত্বে যাওয়া-আসা করতে পারেন। এ ব্যায়ামটি শরীরকে ফিট রাখতে সাহায্য করে, সেই সঙ্গে শরীরের মেটাবোলিজম বাড়াতে সাহায্য করে ও ক্ষতিকারক চর্বি কমিয়ে ওজন কমাতে সাহায্য করে।
যেহেতু এটি একটি অ্যারোবিক এক্সারসাইজ তাই এর অনুশীলনে কার্ডিও ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। সেই সঙ্গে পানির রেসিস্টেনস ক্ষমতাকে প্রতিহত করতে গিয়ে শরীরের পেশিগুলো সুন্দর ও শক্তিশালীও হয়ে ওঠে অনেক বেশি। সাঁতারে শ্বাস-প্রশ্বাসের সমস্যা দূর হয়।
অ্যাজমা রোগীদের জন্য সাঁতার খুবই উপকারী। সাঁতারের ফলে ফুসফুসের কর্মক্ষমতা অনেকাংশে বৃদ্ধি পায়। তাই অ্যাজমার সমস্যা অনেক কমে আসে।
হাই প্রেসারের রোগীদের জন্যও সাঁতার অনেক ভালো একটি এক্সারসাইজ। নিয়মিত সাঁতার কাটলে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে থাকে।
সাঁতারের সময় মাথা, ঘাড়, দুই হাত-পা, মোট কথা ঊর্ধ্বাঙ্গ ও নি¤œাঙ্গের সব অঙ্গের সমন্বয় একসঙ্গে ঘটে বলে অল্প সময়ে সব অঙ্গের ব্যায়াম সম্পন্ন করা যায়। যাদের পিঠ ও কোমরের সমস্যা আছে তাদের জন্যও সাঁতার একটি উৎকৃষ্ট ব্যায়াম। এতে মেরুদ- সোজা হয় ও হাড়ের জোড়াগুলো শক্ত হয়ে ওঠে।
সাঁতারের জন্য কোনো বয়সসীমা নেই। যে কোনো বয়সেই সাঁতার কাটা সম্ভব। যারা শরীর সুস্থ রাখতে চান; কিন্তু ব্যায়াম করতে পারছেন না তারা সাঁতার কাটতে পারেন নিয়মিত।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ