• বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২১, ০৯:২০ অপরাহ্ন |

রাজারহাটে ইউপি সদস্যের নামে হত্যা মামলা

mamlaরাজারহাট (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের রাজারহাটে জমি-জমা কোন্দলের জের ধরে গৃহবধূ হানিছা বেগম (৪০) কে মারপিট করার পর গলায় রশি লাগিয়ে আত্মহত্যার ঘটনার ১১ দিন অতিবাহিত হলেও থানা পুলিশ মামলা না নেয়ায় অবশেষে নিরুপায় হয়ে ওই গৃহবধূর ছোট ভাই আনোয়ার হোসেন বাদী হয়ে কুড়িগ্রাম আমলী আদালত (গ)-এ ইউপি সদস্য আব্দুল বাতেনকে প্রধান আসামী করে ১০ জনের নামে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে।
মামলার বিবরণে প্রকাশ, উপজেলার বিদ্যানন্দ ইউপি’র চতুরা গ্রামের হানিফ আলীর কন্যা হানিছা বেগমের সঙ্গে পার্শ্ববর্তী রামহরি গ্রামের মৃত মুছিয়ার রহমানের পুত্র কাঁচামাল ব্যবসায়ী গোলাম রব্বানীর সঙ্গে পারিবারিকভাবে ২০ বছর পূর্বে তাদের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে হানিছার স্বামী গোলাম রব্বানীর সঙ্গে জমি-জমা নিয়ে তার চাচাতো-জেঠাতো ভাইদের মাঝে কোন্দল চলে আসছিল। বিয়ের পর তার স্ত্রী হানিছা বেগম ওইসব বিষয় নিয়ে প্রতিবাদ করায় গোলাম রব্বানীর চাচাতো ভাই বর্তমান বিদ্যানন্দ ইউপি’র ১নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. আব্দুল বাতেনের নির্দেশে আসামীদ্বয় কারণে-অকারণে হানিছা বেগমের উপর নির্যাতন চালিয়ে আসছিল। এরই সূত্র ধরে গত ২৫ জুলাই’১৪ ইং শুক্রবার দুপুরে ইউপি সদস্য আব্দুল বাতেনের হুকুমে তার চাচাতো-জেঠাতো ভাই ও তাদের স্ত্রীরা মিলে হানিছা বেগমের উপর নির্মম নির্যাতন চালায়। এক পর্যায়ে হানিছা সংজ্ঞাহীন হয়ে পড়লে কৌশলে তার গলায় রশি পেঁচিয়ে ঘরের তীরের সঙ্গে ফাঁস লাগিয়ে দিয়ে আত্মহত্যার প্রচার চালায়। খবর পেয়ে হানিছার বাবার বাড়ীর লোকজন ঘটনাস্থলে পৌঁছে রাজারহাট থানা পুলিশকে খবর দেয়। ওই দিন বিকেলে রাজারহাট থানার এস আই কফিল উদ্দিনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কুড়িগ্রাম মর্গে প্রেরণ করে। এরপর হানিছার পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় এজাহার দিতে গেলে ওসি এজাহার গ্রহণ না করে ওই রাতে তরিঘরি করে অপমৃত্যুর মামলা রুজু করে। যার মামলা নং-৪/১৪, তাং-২৫-০৭-২০১৪ ইং। এরপর নিরুপায় হয়ে হানিছার ছোট ভাই আনোয়ার হোসেন বাদী হয়ে কুড়িগ্রাম আমলী আদালত (গ)-এ দন্ডবিধি ৩০২/৩৪ ধারায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ বিষয়ে রাজারহাট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এম এম ময়নুল ইসলামের সঙ্গে কথা হলে তিনি বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, ময়না তদন্তের রিপোর্ট না পাওয়া পর্যন্ত মামলা না করার পরামর্শ দেন এবং ময়না তদন্তের রিপোর্টে হত্যার আলামত পাওয়া গেলে মামলা রুজু করা হবে বলে তিনি জানিয়েছেন। বিষয়টি হত্যা না আত্মহত্যা এ নিয়ে এলাকা জুড়ে সাধারণ মানুষের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে।

পূর্ব শত্র“তার জের ধরে বাড়িতে আগুন
কুড়িগ্রামের রাজারহাটে পূর্ব শত্র“তার জের ধরে প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে বাড়িতে আগুন দেয়ার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার চাকিরপশার ইউপি’র খুলিয়াতারী গ্রামে। ওই গ্রামের ফরহাদ আলীর সঙ্গে পাশ্ববর্তী নূর ইসলামের পুকুর নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে দ্বন্দ্ব চলে আসছিল। এরই জের ধরে গতকাল দুপুরে ফরহাদ আলীর বখাটে পুত্র একাধিক মামলার আসামী তাজুল ইসলাম কর্তৃক নূর ইসলামের খড়ের গাঁধায় আগুন ধরিয়ে দেয়। খবর পেয়ে কুড়িগ্রাম থেকে ফায়ার সার্ভিস’র একটি ইউনিট এসে আধা ঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত রাজারহাট থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ