• সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ০৮:৫৭ পূর্বাহ্ন |
শিরোনাম :
পদ্মা সেতুর রেলিংয়ের নাট খোলা বায়েজিদ আটক নীলফামারী জেলা শিক্ষা অফিসার শফিকুল ইসলামের শ্বশুড়ের ইন্তেকাল সৈয়দপুর সরকারি বিজ্ঞান কলেজের গ্রন্থাগারের মূল্যবান বইপত্র গোপনে বিক্রি ফেনসিডিলসহ সেচ্ছাসেবক লীগের নেতা গ্রেপ্তার এ সেতু আমাদের অহংকার, আমাদের গর্ব: প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ-ভারতে রেল যোগাযোগ বন্ধ থাকবে ৮ দিন পদ্মা সেতুর উদ্বোধন বাংলাদেশের জন্য এক গৌরবোজ্জ্বল ঐতিহাসিক দিন: প্রধানমন্ত্রী পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যেতে মানতে হবে যেসব নির্দেশনা সৈয়দপুরে বিস্কুট দেয়ার প্রলোভনে শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ গণমানুষের সমর্থনেই পদ্মা সেতু নির্মাণ সম্ভব হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী

জাতীয় পার্টি ভাঙছে না: রাঙ্গা

indexরংপুর:  জাতীয় পার্টি ভাঙছে না দাবি করে যুক্তি দেখিয়ে জাতীয় পার্টির অব্যাহতি পাওয়া প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং স্থানীয় সরকার  সমবায় ও পল্লী উন্নয়ণ প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা বলেছেন, যদি স্বামী-স্ত্রী হিসেবে এরশাদ ও রওশনের বিচ্ছেদ হতো, তাহলে দল ভাঙার একটা সম্ভাবনা ছিল। যেহেতু তারা এখনও স্বামী-স্ত্রী হিসেবে আছেন, বিচ্ছেদ হয়নি। সুতরাং জাতীয় পার্টিও বিভক্ত হওয়ার সুযোগ নাই। আমরা সবাই ইউনাইটেড থাকবো। সাত দিনের মধ্যে সমস্যার সমাধান করবো।
সোমবার সকালে রংপুর সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে তিনি এই দাবি করেন।
এরশাদের ‘ভাগনে’ হিসেবে পরিচিত রাঙ্গা এসময় আরও বলেন, ‘জাতীয় পার্টিতে কোনো ভেদাভেদ নেই। ভুলবোঝাবুঝি নেই। কিছু মধ্যস্বত্বভোগী যারা নিজ স্বার্থ চরিতার্থ করতে এই কাজগুলো করছেন। বা স্যারকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছেন। আমি স্যারকে বিভ্রান্ত করতে চাই না। আজকে হোক কালকে হোক একসাথে আমরা হয়েই যাবো। এখানে কোনো ভুল নাই। আমি জাতীয় পার্টি থেকে অন্য কোনো দলে যাচ্ছি না, যাবো না বা যাবার সম্ভাবনাও নেই।”
প্রেসিডিয়াম সদস্য পদ থেকে অব্যাহতি প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে রাঙ্গা বলেন, “সময়বায় মন্ত্রণালয়টি খুব বড় ও ব্যস্ততম মন্ত্রণালয়। বিশ্বব্যাপী এর কর্মকাণ্ড বিস্তৃত। ব্যস্ততার কারণে আমি প্রেসিডিয়ামের সভায় ঠিকমত সময় দিতে পারি না। এজন্য পার্টির চেয়ারম্যান ৩৯ ধারার ক্ষমতাবলে আমাকে ওই পদ থেকে অব্যাহতি দিয়েছে। ওনি কখনও মনে করলে আমাকে আবার গ্রহণ করতে পারেন। সংসদ অধিবেশনে পার্টির চেয়ারম্যানের সাথে আমার দেখা ও কথা হয়েছে। কিন্ত অব্যাহতির বিষয়টি আমাকে বলেন নি। আমাকে অব্যাহতির কোনো চিঠি দেয়া হয় নি। আমি মিডিয়ার মাধ্যমে জেনেছি।”
এসময় সুনীল শুভ রায় স্বাক্ষরিত চিঠির বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে রাঙ্গা বলেন, “তিনিও বহিষ্কার হয়েছিল। তার বহিষ্কারাদের প্রত্যাহার হয়েছিল কি না আমি জানি না। তিনি জাতীয় পার্টির একজন কর্মচারী। সুতরাং তিনি কী দিলেন আর কী বললেন- এটা আমার দেখা বিষয় নয়।”
আরেক প্রশ্নের জবাবে রাঙ্গা বলেন, “ষড়যন্ত্রকারী বহিষ্কৃতদের জন্যই আমরা রংপুর সিটি করপোরেশনসহ উপজেলা নির্বাচনে জাতীয় পার্টি পরাজিত হয়েছি। তাদেরকে যদি কর্মীরা অফিসে ঢুকতে না দেয় তাহলে আমি সেটা সমর্থন করি। আমার পক্ষ থেকে আমাকে যারা ভালোবাসে তাদেরকে আমি বলেছি, রংপুরে যেন দাঙ্গা-হাঙ্গামা কেউ না করে।”
সরকারের প্রসঙ্গে প্রতিমন্ত্রী রাঙ্গা বলেন, “সরকার ভালো কাজ করলে , ভালো বিল আনলে সেটা আমরা সমর্থন করবো। গণবিরোধী কোন কাজ ও কিংবা কোন বিল আনলে সেটার বিরোধিতা করবো।”
এসময় তার পাশে ছিলেন স্ত্রী সঞ্চিতা রহমান, জাতীয় সহ সভাপতি আব্দুল লতিব খান ও যুগ্ম সম্পাদক সামসুল আলম, যুব সংগতির সভাপতি হাজী আব্দুর রাজ্জাক, সেক্রেটারি হাসানুজ্জামান নাজিম প্রমুখ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ