• বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ০৯:৫৭ অপরাহ্ন |
শিরোনাম :
শিক্ষককে পিটিয়ে হত্যা: প্রধান আসামি জিতু গ্রেপ্তার সৈয়দপুরে কিশোরী ধর্ষণের ঘটনায় বিজিবি সদস্যকে আত্মসমর্পণের নির্দেশ শ্রেণিকক্ষে রাবি শিক্ষিকাকে মারতে গেলেন ছাত্র! অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার অভিযােগ এনজিও’র দুই কর্মকর্তা গ্রেফতার জলঢাকায় মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার রোধকল্পে সমন্বিত কর্মপরিকল্পনা প্রণয়নে কর্মশালা ইউনূস, হিলারি ও চেরি ব্লেয়ারের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার দাবি সংসদে মার্কেট-শপিং মলে মাস্ক বাধ্যতামূলক করে প্রজ্ঞাপন খানসামায় র‌্যাবের অভিযান ইয়াবাসহ দুই মাদককারবারী গ্রেপ্তার ডোমার ও ডিমলায় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ ১০ উদ্যোগ নিয়ে কর্মশালা নীলফামারীতে ৫ সহযোগীসহ কুখ্যাত চোর ফজল গ্রেপ্তার

সঙ্গীত শিল্পী সালমার স্বামী এমপি শিবলীকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত

93196_1সিসি নিউজ : ইউএনওকে মারধরের ঘটনার জের ধরে দিনাজপুর- ৬ আসনের সংসদ সদস্য শিবলী সাদিককে দল থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে উপজেলা আওয়ামী লীগ। বৃহস্পতিবার উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমানের নেতৃত্বে এ সংক্রান্ত এক সভা অনুষ্ঠিত হয়।

নবাবগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান এ বিষয়ে জানান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আব্দুল হালিম সরকারের সভাপতিত্বে মিটিংয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও দিনাজপুর-৬ আসনের সংসদ সদস্য শিবলী সাদিককে দল থেকে বহিষ্কারের বিষয়ে সিদ্ধান্ত সংক্রান্ত এক সভা অনুষ্ঠিত হয় বৃহস্পতিবার রাতে।

শিবলী সাদিককে বহিষ্কারের দাবি জানিয়ে একটি পত্র প্রধানমন্ত্রী, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়, জেলা আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন দপ্তরে পাঠানো হয়েছে।

আতাউর রহমান বলেন, ‘জামায়াত লালনকারী, সন্ত্রাসী ও মাদকসেবী এমন একজনকে দলে রেখে আমরা দলের ভাবমূর্তি নষ্ট করতে চাই না। তাই তাকে অবিলম্বে দল থেকে বহিষ্কারের দাবি জানিয়ে আমরা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরে পত্র দিয়েছি। আশা করছি, অবিলম্বে এই নব্য জামায়াতিকে দল থেকে বহিষ্কার করবেন প্রধানমন্ত্রী।’

এ ব্যাপারে দিনাজপুর-৬ আসনের সংসদ সদস্য ও নবাবগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শিবলী সাদিক এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘বিষয়টি সঠিক নয়। আমি দলের সভাপতি। কমিটির সিংহভাগ নেতারা রয়েছে আমার পক্ষে। দলের জামায়াতপন্থি সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান ও তার দালালদের দাবি বা সিদ্ধান্তই সব কিছু নয়।’

সংশ্লিষ্ট সূত্র থেকে জানা গেছে, গত বছরের ডিসেম্বরে নবাবগঞ্জে ৩৯টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নৈশ্যপ্রহরী কাম পিয়ন পদে নিয়োগকে কেন্দ্র করে নবাবগঞ্জ ইউএনও এবং দিনাজপুর-৬ (নবাবগঞ্জ-বিরামপুর-ঘোড়াঘাট ও হাকিমপুর) আসনের সংসদ সদস্য শিবলী সাদিকের মধ্যে বিরোধের সৃষ্টি হয়। কাঙ্ক্ষিত প্রার্থীদের নিয়োগ না হওয়ায় শুরু থেকেই এই নিয়োগের বিরোধিতা করে আসছিলেন স্থানীয় সংসদ সদস্য।

গত বুধবার ওই ৩৯ জন নৈশ্য প্রহরীর বেতন বিল উপজেলা ট্রেজারি অফিসে জমা দেয়া হলে সরকারি দলের নেতাকর্মী ও নিয়োগ বঞ্চিত লোকেরা বিক্ষুব্ধ হয়ে নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহীর কার্যালয়ের কলাপসেবল গেট ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে। এরপর তারা ইউএনও অফিসে ঢুকে তার কার্যালয়সহ ৩টি অফিসকক্ষ ভাঙচুর ও তছনছ করে। এ সময় তারা ইউএনও সৈয়দ ফরহাদ হোসেনকেও বেদম প্রহার করা হয়। অন্যরা ইউএনওকে রক্ষা করতে এগিয়ে এলে কমপক্ষে ৫ জন আহত হয়।

গুরুতর আহত ইউএনওকে প্রথমে তাকে নবাবগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে স্থানান্তর করা হয় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। ইউএনওর অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন নবাবগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিরুল ইসলাম।

এদিকে এ ঘটনায় নবাবগঞ্জে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। নিবার্হী কর্মকর্তা ও অফিস কর্মচারীদের মারপিটের ঘটনায় জড়িতদের গ্রেপ্তারের দাবিতে উপজেলা ৩য় ও ৪র্থ শ্রেণীর সরকারি কর্মচারী সমিতি প্রতিবাদ সভা করেছে বৃহস্পতিবার। এ ঘটনায় ৪ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আর ৬০ জনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিস সুপার আব্দুর রহমান। ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে যুবলীগের দুই নেতাকে গ্রেপ্তারও করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- যুবলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মান্নান (৩৫) ও যুবলীগের কার্যকরী সদস্য আলম (২৫)।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ