• মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২, ০৪:০৪ পূর্বাহ্ন |
শিরোনাম :

সৈয়দপুরে মাদকাসক্ত পুত্রের চাপাতির আঘাতে পিতা আহত

indexসিসি নিউজ: মাদকাসক্ত পুত্রের চাপাতির কোপে গুরুতর আহত হয়ে শামসুল হুদা ওরফে কদম (৬০) নামের এক  পিতাকে মুমুর্ষ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শুক্রবার সকালে নীলফামারীর সৈয়দপুর শহরে ওই ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ মাদকাসক্ত পুত্র রায়হান আরেফীন ভাষনকে (২৫) গ্রেফতার করেছে।
সূত্র মতে, শহরের বাঙ্গালীপুর নিজপাড়ার দারুল উলুম কোয়াটারে বাস করেন রেলওয়ে কারখানার অবসরপ্রাপ্ত কর্মচারী শামসুল হুদা ওরফে কদম। তাঁরই বড় ছেলে সৈয়দপুর মহাবিদ্যালয়ের স্নাতকের ছাত্র রায়হান আরেফীন ওরফে ভাষন। স্থানীয় সূত্রটি জানায়, রায়হান দীর্ঘদিন থেকে মাদকে আসক্ত। এতে তার পরিবার অতিষ্ঠ হয়ে পড়ে। ঘটনার দিন সকালে রায়হান তার বাবার কাছে টাকা চায় কিন্তু পিতা কদম পুত্রের চাহিদার  টাকা দিতে অস্বীকার করে এবং মাদকাসক্তের জন্য পুত্রকে গালমন্দ করে। ফলে পিতা-পুত্রের মধ্যে দ্বন্দ্বের সৃষ্টি হয়। এক সময় রায়হান উত্তেজিত হয়ে ঘরে থাকা চাপাতি দিয়ে পিতার মুখে আঘাত করে পালিয়ে যায়। পরে প্রতিবেশীরা গুরুতর আহত পিতাকে দুপুর ১২টার দিকে সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করায়। এখানে অবস্থার অবনতি হওয়া কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা: মনোয়ার হোসেন মানিক ওই রোগীকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করেন।
খবর পেয়ে সৈয়দপুর থানা পুলিশ সৈয়দপুর সেনানিবাসের সেনা কমিউনিটি সেন্টার সংলগ্ন গ্যারিসন ক্যান্টিন থেকে তাকে আটক করে।
এ ঘটনার বিষয়ে সৈয়দপুর থানা চত্ত্বরে কথা হয় রায়হান আরেফীনের ছোট বোন সাথিয়া আকতার সিথি’র সাথে। তিনি জানান, রায়হান মাদকাসক্ত নয়। কুরবানির জন্য ব্যবহৃত একটা চাকু হারানোকে কেন্দ্র করে বাবার সাথে তার দ্বন্দ্বের সৃষ্টি হয়।
সৈয়দপুর থানা অফিসার ইনচার্জ ইসমাঈল হোসেন সিসি নিউজকে জানান, রায়হানকে আটক করা হয়েছে এবং মামলার প্রস্তুতি চলছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ