• মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ০২:১৬ পূর্বাহ্ন |

শার্লি এবদো: নাইজেরিয়ায় দু দিনের সহিংসতায় নিহত ১০

3f7tefiwআন্তর্জাতিক ডেস্ক : ফ্রান্সের ব্যাঙ্গাত্মক ম্যাগাজিন শার্লি এবদোতে মহানবীর কার্টুন ছাপানোর প্রতিবাদে নাইজেরিয়ায় শুক্রবার থেকে নতুন করে শুরু হওয়া দু’ দিনের সহিংসতায় কমপক্ষে ১০ জন নিহত হয়েছে।

নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্ট মাহামাদু ইসৌফৌ বলেছেন, শনিবার রাজধানী নিয়ামেতে নতুন করে বিক্ষোভ শুরু করে মুসলমানরা। বিক্ষোভকারীরা শহরের কয়েকটি গির্জা এবং নৈশক্লাবে অগ্নিসংযোগ করে। এ ঘটনায় কমপক্ষে পাঁচ জন নিহত হয়।

এর আগে শুক্রবার জিনদার শহরে জুমার নামাজের পর মিছিল বের করে মুসল্লিরা। এ সময় পুলিশ এবং বিক্ষোভকারীদের মধ্যে সংঘর্ষে নিহত হয়েছিল আরো পাঁচ জন।

শার্লি এবদো ম্যাগাজিনের নতুন সংষ্করণের প্রচ্ছদে মহানবীর ব্যঙ্গচিত্র বের করার প্রতিবাদে নাইজেরিয়ায় নতুন করে দাঙ্গা হাঙ্গামা ছড়িয়ে পড়েছে। গত বুধবার প্রকাশিত ওই সংখ্যায় মহানবীর ছবিতে একটি প্লেকার্ড ধরা রয়েছে যেখানে লেখা রয়েছে ‘আই অ্যাম শার্লি’। এর নিচে লেখা রয়েছে ‘সবইকে ক্ষমা করা হল।’

এর আগে গত ৭ জানুয়ারি পত্রিকাটির প্যারিস কার্যালয়ে হামলা চালিয়ে ১২ জনকে হত্যা করেছিল ইসলামি জঙ্গিরা। এই হত্যাকাণ্ডের এক সপ্তাহ পর বুধবার শার্লি এবদোর ৩০ লাখ কপি প্রকাশিত হয়।

আল জাজিরা বলছে, শনিবার নিয়ামে শহরে ইসলামি দলের নেতাদের নেতৃত্বে একটি মিছিল বের হয়। তারা ফরাসি সরকার এবং শার্লি এবদোর বিরুদ্ধে নানা শ্লোগান দেয়। তাদের ছত্রভঙ্গ করতে টিয়ার গ্যাস নিক্ষেপ করে পুলিশ। জবাবে তারাও পুলিশের দিকে পাথর ছুড়তে থাকে। সংঘর্ষের এক পর্যায়ে তারা কমপক্ষে ৬টি গির্জায় আগুন ধরিয়ে দেয়। এছাড়া তারা একটি পুলিশ স্টেশনে হামলা চালিয়ে দুটি পুলিশের গাড়িতেও আগুন দেয়।

স্থানীয় পুলিশের বরাত দিয়ে রয়টার্স জানায়, সংঘর্ষের পর নিয়ামের শহরতলির এক গির্জা থেকে দুটি অগ্নিদগ্ধ লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। এছাড়া নৈশক্লাব থেকে একজন নারীর মৃতদেহ উদ্ধার করা

এদিকে সহিসংতার পর নাইজেরিয়ায়ি অবস্থানকারী ফরাসি নাগরিকদের ঘরে থাকার পরামর্শ দিয়েছে ফরাসি দূতাবাস। রাজধানী নিয়ামে ছাড়া অন্যান্য শহরেও বিক্ষোভের খবর পাওয়া গেছে।

এর আগে গত শুক্রবার নাইজেরিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর জিন্দারে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষে এক পুলিশ কর্মকর্তাসহ পাঁচ জন নিহত হয়েছিল।

শার্লি এবদোতে মহাননবীর ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশের প্রতিবাদে আফ্রিকার অন্যান্য দেশ যেমন: মালি, সেনেগাল, মৌরতানিয়া এবং আলজেরিয়ায় শুক্রবার জুমার নামাজের পর বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়েছে। তবে সেসব বিক্ষোভ মিছিলগুলো শান্তিপূর্ণভাবেই শেষ হয়েছে বলে জানা গেছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ