• মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৮:৪৯ অপরাহ্ন |

দিল্লির তখতে কিরণ না কেজরি!

image_116790_0আন্তর্জাতিক ডেস্ক: কোনো রকম বড়সড় গোলমাল ছাড়াই শেষ হল রাজধানী দিল্লির বিধানসভা ভোট। ইভিএম-বন্দি হলো মোট ৭০টি আসনের ৬৭৬ জন প্রার্থীর ভাগ্য। ফল বেরোবে ১০ ফেব্রুয়ারি। সেদিনই জানা যাবে, মোদি-ম্যাজিকে ভর করে উতরে যাবেন কিরণ বেদি, নাকি এবারেও খেল দেখাবে কেজরিওয়ালের ক্যারিশমা? একের পর বিপর্যয়ে টালমাটাল কংগ্রেসকে দিল্লিতে সরকার গঠনের অন্যতম দাবিদারের লড়াই থেকে বাদ রেখেছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। তাই কিরণ-কেজরির লড়াইয়ের চিত্রনাট্য যতটা টানটান, তার পাশে ততটাই ফিকে কংগ্রেসের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী অজয় মাকেন।
ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে কলকাতায় শীত কমে এলেও দিল্লির হাড় কাঁপানো ঠাণ্ডা মোটেও পিছু ছাড়েনি। তাই সকাল সকাল সোয়েটার, মাফলারে সজ্জিত দিল্লিবাসী ভিড় জমালেন বুথের সামনে। আবহাওয়া ভালো থাকায় ভোটদানের হারও মোটের উপর ভালোই। বিকেল চারটে পর্যন্ত ভোট পড়েছে ৫৫.৬৮%। মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক হরিশঙ্কর ব্রহ্মা মোট ভোটের হার ৭০% ছাড়িয়ে যাবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন। ভোটের নিরিখে এগিয়ে রয়েছে ত্রিলোকপুরী, সবার শেষে মাতিয়া মহল।
গোলমালের খবর না থাকলেও দিল্লি নির্বাচন ঘিরে অভিযোগ-পাল্টা অভিযোগ জারি রয়েছে। আম আদমি পার্টি ছেড়ে বিজেপিতে আসা শাজিয়া ইলমিকে আপ কর্মীরা হেনস্থা করেছেন বলে তার অভিযোগ। অন্যদিকে কিরণ বেদি ভোটের দিন সকালে নির্বাচনী প্রচার চালিয়ে বিধি ভঙ্গ করেছেন বলে অভিযোগ করেছেন আপ প্রধান কেজরিওয়াল। উল্টো দিকে আপ টাকা দিয়ে ভোট কিনছে বলে দাবি বিজেপির মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী কিরণ বেদি। অন্য রাজনৈতিক দল শুক্রবার রাত থেকে মদ ও টাকা বিলি করে ভোটারদের প্রভাবিত করার চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ করেছেন কেজরিওয়াল।সাংলি বুথে আপ কর্মীদের হাতে হেনস্থা হওয়ার অভিযোগ করেছেন বিজেপি প্রার্থী নুপূর শর্মাও। বিজেপি প্রার্থী মাতিয়ালার গাড়ি আম কর্মীরা ভাঙচুর করেছে বলে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

এদিন সকাল সকাল ভোট দিয়েছেন রাজনীতির প্রায় সব তারকাই। দিল্লির প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী শীলা দিক্ষীতের সঙ্গে মধ্য দিল্লির বুথে ভোট দিয়েছেন কংগ্রেস প্রেসিডেন্ট সনিয়া গান্ধি। আওরঙ্গজেব লেন পোলিং বুথে সকালেই ভোট পর্ব চুকিয়েছেন রাহুলও। তবে স্বামী রবার্ট ভদরার সঙ্গে দুপুরের দিকে বুথে আসতে দেখা যায় প্রিয়াঙ্কাকে। সকাল সকাল ভোট দিয়েছেন কেজরিওয়াল, কিরণ বেদি, বরুণ গান্ধি। দলের কাজে বিহারে থাকায় দিল্লির ভোটে অংশ নিতে পারেননি সিপিএম-এর সাধারণ সম্পাদক প্রকাশ কারাট।- ওয়েবসাইট


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ