• রবিবার, ২২ মে ২০২২, ১২:৪০ অপরাহ্ন |

পাকিস্তানে একই দিনে ১২ জনের ফাঁসি

fasi_0আন্তর্জাতিক ডেস্ক: মঙ্গলবার এক সঙ্গে ১২জন মৃত্যুদণ্ড প্রাপ্ত আসামীকে ফাঁসিতে ঝোলালো পাক সরকার । ডিসেম্বরে ক্যাপিটাল পানিশমেন্টের উপর থেকে অঘোষিত স্থগিতাদেশ উঠে যাওয়ার পর এই প্রথমবার একই দিনে এতজনের ফাঁসি হল ।
গত বছর ১৬ ডিসেম্বর তালিবানি হামলায় পেশোয়ারে সেনা স্কুলে খুন হয় অন্তত ১৫০ জন শিশু । এর পরের দিন, ১৭ তারিখ থেকেই পাকিস্তানে মৃত্যুদণ্ড প্রাপ্তদের উপর থেকে ফাঁসির স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার করেন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ ।

তারপর থেকে এখনও পর্যন্ত ২৭ জনের ফাঁসি হয়েছে পাকিস্তানে । বেশিরভাগই সন্ত্রাসবাদী । গত সপ্তাহে পাক প্রশাসন মৃত্যুদণ্ড প্রাপ্ত আসামীদের ক্ষমার আর্জি খারিজ করে দিয়েছে ।

পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের তরফ থেকে জানানো হয়েছে ”এরা শুধু মাত্র জঙ্গি নয়, আরও বহু অপরাধমূলক কাজের সঙ্গে জড়িত ছিল । অনেকে খুনি, অনেকে আরও ঘৃণ্য অপরাধ করেছিল ।”

আর সেনা শাসন ব্যবস্থা থেকে গণতান্ত্রিক সরকারের হাতে ক্ষমতা হস্তান্তরের পর ২০০৮ সাল থেকে ফাঁসির উপর স্থগিতাদেশ জারি করা হয়েছিল পাকিস্তানে ।

বহু মানবাধিকার সংগঠনের দাবি পাকিস্তানে বিনা কারণেই অপরাধী সাব্যস্ত হয়েছেন বহু মানুষ । পাকিস্তানি জেলে পুলিশি অত্যাচারের যে খবর পাওয়া গেছে তা ভয়াবহ । সারা দেশে এখনও পর্যন্ত ৮ হাজার জনের মাথায় মৃত্যু ঝুলছে ।

বৃহস্পতিবার শাফকত হোসেন নামের একজন অপরাধীর ফাঁসি হয়েছে পাকিস্তানে । শাফকতের বিরুদ্ধে এক শিশুর অপহরণ ও হত্যার অভিযোগ ছিল । তার আইনজীবীর দাবি, শাফকতকে যখন ধরা হয় তখন তার বয়স ছিল মাত্র ১৪ । টানা ৯ দিন তার উপর নির্ম অত্যাচার করে তাকে অপরাধ কবুল করতে বাধ্য করা হয় ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ