• শনিবার, ১৩ অগাস্ট ২০২২, ০৯:২৪ অপরাহ্ন |

মহাত্মা গান্ধী ব্রিটিশ চর ছিলেন- সাধবী প্রাচী

cc-aআন্তর্জাতিক ডেস্ক: ভারতে বারেবারেই আরএসএসের এই কট্টরপন্থী বক্তার বক্তব্য ঘিরে বিতর্ক তৈরি হয়েছে ৷ কযেকদিন আগেই তিনি বলেছিলেন শাহরুখ খান, সালমন খান এবং আমির খানের সিনেমা দেখা উচিত নয়৷ তাঁদের অবিলম্বে বয়কট করা উচিত ৷ এতেই শেষ নয়, তার পরের উপদেশ, স্বয়ং কংগ্রেস সহ সভাপতি রাহুল গান্ধীকে নিয়ে ৷ এবার বললেন, কোনও ভারতীয় মেয়েকে বিয়ে করা উচিত রাহুলের৷ আর গতকাল বৃহস্পতিবার বললেন, ভারতের জাতির জনক মহাত্মা গান্ধীকে নিয়ে। তিনি ছিলেন নাকি ব্রিটিশ চর৷উত্তরপ্রদেশে বহরাইচে বিশ্বহিন্দু পরিষদের একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছিলেন এই কট্টরপন্থী  সাধ্বী৷  কিন্ত্ত কোনও কিছুতেই পিছপা হননি তিনি৷ এমনকি স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও দলীয় সাংসদ, নেতা-মন্ত্রীদের সতর্ক করেছিলেন বারেবারে৷
উত্তরপ্রদেশের এই সভায়  সাধ্বী প্রাচী বলেন, ‘মহাত্মা গান্ধী ছিলেন ব্রিটিশের চর৷ তিনি আরও বলেন, ভারতকে স্বাধীনতা এনে দিয়েছেন দু’জন৷ একজন ভগত সিং৷ অপরজন দক্ষিণপন্থী নেতা বিনায়ক সাভারকর৷’
অবশ্য অতি সম্প্রতিই গান্ধীকে এই একইভাবে নিশানা করেছিলেন ভারতের প্রেস কাউন্সিলের প্রাক্তন চেয়ারম্যান মার্কেন্ডেয় কাটজু৷ তিনিও বলেছিলেন, গান্ধী ছিলেন ব্রিটিশ চর৷ ভারতে কাটজুর সেই বক্তব্য নিয়ে ঝড়ও উঠেছিল সংসদে৷ কিন্তু নিজের বক্তব্য থেকে এখনও পর্যন্ত একপাও সরেননি তিনি৷ একইদিন সাধবী হিন্দুদের বেশি সন্তান জন্ম দেওয়ার পক্ষে সওয়াল করেছেন৷ তিনি দাবি করেছেন, প্রতিটি হিন্দু দম্পতির দু’য়ের বেশি সন্তান হওয়া উচিত৷ তবে সবকিছু এড়িয়ে ইতিমধ্যেই গান্ধীজিকে নিয়ে সাধ্বীর এই মন্তব্যে বিতর্ক তৈরি হচ্ছে৷ এখন দেখার ভারতের সংসদে বিষয়টি নিয়ে কী প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়৷ বিরোধীরা বিষয়টিকে যে ইস্যু করতে চলেছে সে বিষয়ে রাজনৈতিক মহলের কোনও সন্দেহ নেই৷


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ