• শনিবার, ১৩ অগাস্ট ২০২২, ০৯:১৫ অপরাহ্ন |

সাত টুকরো লাশ : বাংলা সোহেল গ্রেফতার

arrest-1426946345ঢাকা: রাজধানীর মতিঝিলের ফকিরাপুল এলাকা থেকে সুমি (২৩) নামের এক তরুণীর সাত টুকরো লাশ উদ্ধারের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে একজনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। আটককৃতের নাম জাহাঙ্গীর হোসেন সোহেল। তিনি বাংলা সোহেল নামেও পরিচিত।

শনিবার সকাল ১০টার দিকে ফকিরাপুল বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে র‌্যাব-৩ এর একটি দল। আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেন র‌্যাবের মিডিয়া উইংয়ের সহকারী পরিচালক ক্যাপ্টেন মাকসুদুল আলম।

মাকসুদুল আলম জানান, গত ১০ মার্চ রাজধানীর ফকিরাপুল পানির ট্যাংক সংলগ্ন হোটেল উপবনের পাশে রোকেয়া আহসান মঞ্জিলের ছাদ ও আশেপাশের তিনটি বাড়ির ছাদ থেকে এক অজ্ঞাত তরুণীর সাত টুকরো লাশ উদ্ধার করা হয়। ঘটনা ধামাচাপা দিতে ঘাতকেরা লাশের মুখমণ্ডল আগুলে ঝলসে বিকৃত করে। শরীরের বিভিন্ন অংশ বিছিন্ন করে সাত টুকরো করে ফেলে দেওয়া হয়। শরীরের খণ্ডিত অংশগুলো ফেলার সময় যাতে শব্দ না হয় সে জন্য দড়ি বেঁধে কৌশলে নিচে নামিয়ে দেওয়া হয়। মাথা ও হাত-পা বিহীন মূল অংশটি চাদর দিয়ে পেঁচানো ছিল ।

পরবর্তী সময়ে ওই তরুণীর নাম ও পরিচয় জানা যায়। তার নাম সুমী। তিনি ওই এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিনের স্ত্রী।

ঘটনার গুরুত্ব বিবেচনায় নিয়ে র‌্যাব-৩ গোয়েন্দা নজরদারির মাধ্যমে জানতে পারে যে, নিহত সুমী মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত। মাদকের টাকা লেনদেনের জের ধরে ওই হত্যাকাণ্ড ঘটে।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে র‌্যাব-৩ এর একটি আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কৌশলে শনিবার সকাল ১০টার দিকে রাজধানীর ফকিরাপুল বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে হত্যাকাণ্ডে জড়িত জাহাঙ্গীর হোসেন সোহেল ওরফে বাংলা সোহেলকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত সোহেল জানায় যে, গত ৯ মার্চ রাত ৭টার দিকে মোবারক উল্লাহ মন্টি সুমীকে তার ফকিরাপুলস্থ রোকেয়া আহসান মঞ্জিলে ডেকে পাঠায়। এ সময় ঘটনাস্থলে মন্টি, সাইদুল এবং সুজনসহ আরো কয়েকজন মধ্যরাত পর্যন্ত মাদক সেবন করে। এক পর্যায়ে মাদক সংক্রান্ত অর্থ লেনদেনের পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আসামিরা সুমীকে যৌন নির্যাতন করে। পরবর্তী সময়ে পরিকল্পিতভাবে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যা করে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ