• শনিবার, ২০ অগাস্ট ২০২২, ০৪:৫৯ পূর্বাহ্ন |

সেরেনা এখন একাই সাত’শ

Seranaখেলাধুলা ডেস্ক : নিজের মনেই বিড়বিড় করছিলেন ক্রমাগত৷ র‌্যাকেট ঠুকছিলেন৷ নিজের উপর বিরক্তিতে মাঝে মাঝে সূর্যের দিকে মুখ করে তাকাচ্ছিলেন৷ কিন্ত্ত শেষমেশ নানা প্রতিবন্ধকতা কাটিয়ে জিতলেনও৷ নিজের খেলোয়াড় জীবনের ৭০০তম জয়৷ সাবিন লিসিকিকে হারিয়ে মিয়ামি ওপেনের সেমিফাইনালে পৌঁছলেন সেরেনা উইলিয়ামস৷ ম্যাচের ফল সেরেনার পক্ষে ৭-৬ (৪), ১-৬, ৬-৩৷
বারবার সার্ভিসে সমস্যা হচ্ছিল, দ্বিতীয় সেটে তো খুবই খারাপ খেললেন, ৫১টা অনফোর্সড এরর-এই সব পরিসংখ্যানই বলে দেয়, কেন তিনি নিজের উপর বিরক্ত হয়ে যাচ্ছিলেন৷ বারবার নিজের সঙ্গে কথা বলছিলেন, র্যাকেট ঠুকছিলেন মাটিতে৷ কিন্ত্ত লেজেন্ড তো শেষ পর্যন্ত লেজেন্ডই থাকেন৷ আর সে ভাবেই ম্যাচটা পকেটেও পুরে নিলেন টেনিস কিংবদন্তি৷

ম্যাচের পর সেরেনার বক্তব্য, ‘ওই দিকটায় খেলতে আমার সমস্যা হচ্ছিল৷ এমনিতেই আমি আজ ছন্দে ছিলাম না৷ দেখতেই পাচ্ছিলাম না অনেক সময়! সার্ভিস ঠিক হয়নি৷ আনফোর্সড এরর-এর সংখ্যা বেড়েছে৷ আমি জানতাম আজ কিছুই ঠিক হচ্ছে না৷’ সঙ্গে জুড়ে দিলেন, ‘আমি নিজেকে বলেছিলাম, যখন কোনও কিছুই হচ্ছে না, তখন একটা অন্তত লড়াই করি৷ নিজের ১০০ শতাংশের বদলে ২০০ শতাংশ দিয়ে চেষ্টা করি৷ আর তাতেই সাফল্য এল৷ আসলে আমার অদৃষ্ট টেনিস খেলা৷ সে দিনই খুঁজে নিজের অনেক ছোটবেলার একটা ছবি পেলাম৷ আমি তখন স্ট্রোলারে চেপে ঘুরি৷ দেখছি, সেই ছবিতে আমি স্ট্রোলারে চেপে টেনিস কোর্টে৷ আমি খেলাটা উপভোগ করি৷ যতদিন পারি খেলব৷’


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ