• সোমবার, ১৫ অগাস্ট ২০২২, ০১:০৯ পূর্বাহ্ন |

কে এই হতভাগী ?

4 April 2015জলঢাকা প্রতিনিধি: নীলফামারীর জলঢাকায় ছয়মাস ধরে এক বাড়ীতে আশ্রিত কে এই হতভাগা নারী? সে তার পরিবারের কাছে ফিরে যেতে চায়। দরকার পরিবারের সন্ধান। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, জলঢাকা উপজেলার কাঁঠালী ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মৃত জপির উদ্দিনের ছেলে তমিজার রহমানের বিন্যাবাড়ী বাজার সংলগ্ন বাড়ীতে নাম ঠিকানার অভাবে আটকে পড়ে আছে এই হতভাগা নারী। আশ্রয়দাতা তমিজার জানায়, প্রায় ৬ মাস আগে শীতকালীন সময় সকালে আমরা বাড়ীর বাইরে আগুনের তাপ নিচ্ছিলাম। পিছনে ফিরে দেখি কোথা থেকে যেন ওই মহিলা আমাদের পাশে এসে দাড়িয়ে কাপতেছিল। তার সাথে কথা বলে কিছু বুঝতে না পারলেও মনে হল সে একটি ভাল পরিবারের মহিলা হবে এবং খুবই ক্ষুধার্ত ছিল সে। আমার স্ত্রী তাকে খেতে দিয়ে অনেক চিন্তা ভাবনা করে এলাকার মানুষের সাথে পরামর্শ করে তাকে আমার বাড়ীতে রেখে দেই। কিন্তু কিছুদিন যেতে না যেতেই শুরু হয় তার কান্না। শত চেষ্টায়ও তাকে থামানো যায় না। এতে মনে হয় তার ছেলে মেয়েসহ পরিবারের কথা যখন মনে পরে তখনই সে কাঁদে। এদিকে আটকে পড়া ওই মহিলার নাম জিজ্ঞাস করলে অস্পষ্ট ভাবে যা বলে তাতে মনে হয় সে বলছে উষ্মি, আশ্বিনা, পোড়ামেরাজ, মাইয়া আসমা। তার বাড়ী কোথায় জানতে চাইলে সে বগুড়া হাড়িপাতিল এবং নদী আছে মাছ আছে বার বার বলতে থাকে। তার কোমড়ে সংসারের একটি চাবির ঝোপাও রয়েছে। আশ্রিত এলাকার মানুষের ধারণা কোন কিছুর লোভে হয়তো কেউ দূর থেকে জলঢাকাগামী গাড়ীতে উঠে দিয়ে সুবিধা হাসিল করছে। এই অসহায় মহিলাটির পরিবারের সন্ধান পাওয়া গেলে নিম্ন মোবাইল নম্বরে যোগাযোগ করার জন্য অনুরোধ করেছে আশ্রয়দাতা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ