• বৃহস্পতিবার, ১১ অগাস্ট ২০২২, ০৯:২৯ অপরাহ্ন |

আপনি ভোট চাইতে পারেন না : তারানা হালিম

52262e5f440fd-Untitled-14ঢাকা: অভিনয় শিল্পী ও সাংসদ তারানা হালিম বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ্য করে বলেছেন, আমরা অগ্নিদগ্ধের গন্ধ ভুলিনি, স্বজনদের কান্না আমাদের আহত করে। আপনি স্বজনদের লাশের উপর দিয়ে কীভাবে ভোট চান? আপনি ভোট চাইতে পারেন না।

শনিবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে সচেতন নাগরিক, চিকিৎসক, বুদ্ধিজীবী ও শিল্পীদের এক মানববন্ধনে তিনি এ আহ্বান জানান। পৃথক পৃথক ব্যানারে এই মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়।

তারানা হালিম বলেন, ‘আপনি একজন মা, অনুগ্রহ করে হরতাল-অবরোধে দগ্ধ হওয়া স্বজনদের কাছে ভোট চেয়ে তাদেরকে ব্যথিত করবেন না। তাদের কষ্টটা বাড়িয়ে দেবেন না।’

তিনি বলেন, ‘যে খালেদা মানুষকে অগ্নিদগ্ধ করেছেন সেই খালেদা তাদের লাশের গন্ধের পাশ দিয়ে ভোট চাইতে পারেন না। এদেশের মানুষ অত্যন্ত সচেতন, তারা ভোলেননি কিছু দিন আগে পেট্রোল বোমায় পোড়া মানুষের কথা, ব্যবসায়ে ক্ষতির কথা। এদেশের জাগ্রত জনগণ যখন জাগে তখন তারা ব্যালটের মাধ্যমে জবাব দেয়। তারা এসব কিছুর প্রতিশোধ নেবে সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ব্যালটের মাধ্যমে অগ্নিসন্ত্রাসের বিরুদ্ধে ভোট দিয়ে।’

সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুস বলেন, ‘আজকে আমাদের এখানে দাঁড়ানোর কথা ছিল না। আমরা দাঁড়িয়েছি কারণ, হরতাল-অবরোধ দিয়ে সাধারণ মানুষের জীবন দুর্বিষহ করা হয়েছিল, ছাত্রদের জীবন কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা হয়েছিল।’

তিনি বলেন, ‘খালেদা জিয়া বলতেন এসব সরকারের চক্রান্ত। আপনি (খালেদা জিয়া) তাহলে বার্ণ ইউনিটে কেন যান নি? কারণ, আপনি জানেন এসবের হোতা আপনি ও আপনার দল। ভোট চাওয়ার অধিকার সকলের রয়েছে। কিন্তু রাজনীতির নামে যারা সহিংসতা করে তাদের ভোট চাওয়ার কোন অধিকার নেই।’

হরতাল-অবরোধে অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা যাওয়া এইচএসসি পরীক্ষার্থী অভির মা নূরজাহান বেগম নিতু বলেন, ‘বেগম জিয়া কেন অবরোধ ডেকে মানুষ পুড়ালেন? আজ তো তিনি ঠিকই ভোট চাইতে চলে আসেন। তখন কেন আমাদের পাশে আসেন নি? আমার ছেলেটা আমার সামনে কাতরে মারা গেছে, আমি চাইনা আর কারো ছেলে এভাবে মারা যাক। যারা হরতাল-অবরোধ দিয়ে আমার ছেলেকে মেরেছে তারা কি একবার ভাবেননি যে কারো না করো মায়ের কোল এভাবে খালি হবে? আমার ছেলে তো কোন অন্যায় করেনি, কেন তাকে পুড়িয়ে মারা হলো?’

মানববন্ধনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন তমালিকা কর্মকার, অরুণা বিশ্বাস, আফরোজা বানু, ফেরদৌসী প্রিয়ভাষিনী, অভিনয় শিল্পী তুষার।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ