• মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ০১:০১ পূর্বাহ্ন |

ক্যারিবিয়ান দ্বৈত্য গেইল তাণ্ডবে শেষ পাঞ্জাব

212691খেলাধুলা ডেস্ক: আগের ম্যাচে তিনি খেলেননি। ক্রিস গেইলকে দিয়ে আর হবে না! চারদিকে এমন ফিসফাস উঠেছিল। সেটা বোধহয় ক্যারিবিয়ান দ্বৈত্যর কান পর্যন্ত পৌঁছেছিল। বুধবার রাতে গেইলের খুনে ব্যাটিং দেখে অন্তত তাই মনে হলো।

গোটা ক্রিকেট দুনিয়া জানে, তিনি ব্যাট হাতে একবার দাঁড়িয়ে গেলে ফিল্ডারদের সীমানার ওপার থেকে বল কুড়ানো ছাড়া উপায় থাকে না। তা এদিন কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের বোলার-ফিল্ডারদের অসহায় বানিয়ে তাই করলেন গেইল।

২৫ বলে ফিফটির পর ৪৬ বলে সেঞ্চুরি। ৫৭ বলে ১১৭। আসলে গেইলের ওই বিধ্বংসী ইনিংসই শেষ করে দিয়েছে পাঞ্জাবকে। খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে প্রীতি জিনতার দল তুলতে পেরেছে মোটে ৮৮ রান। ফলে ১৩৮ রানের বিশাল জয় পেয়েছে বেঙ্গালুরু। যেটা তাদের খুব দরকার ছিল শেষ চারে কোয়ালিফাইয়ের জন্য।

যা একটু স্বপ্ন ছিল পাঞ্জাবের এই পরাজয়ে তা মাটির সঙ্গে মিশে গেল। কলকাতার সমান ১০ ম্যাচ খেলে সমান ১১ পয়েন্ট নিয়ে তাদের পেছনে ফেলে তিনে উঠে এল বেঙ্গালুরু, রানরেটে এগিয়ে থাকার কল্যাণে। আর ১০ ম্যাচে মাত্র দুই জয়ে চার পয়েন্ট নিয়ে তলানিতে পড়ে রইলো পাঞ্জাব।

এদিন জয়ের জন্য ২২৭ রানের লক্ষ্যে ব্যাট হাতে পাঞ্জাবের যে রকম শুরুটা দরকার ছিল সে রকম হয়নি। শ্রীনাথ অরবিন্দ এবং মিচেল স্টার্কের আগুনে বোলিংয়ে ৪৯ রানের মধ্যে ৭ উইকেট হারিয়ে বসে পাঞ্জাব। এ অবস্থায় একটা দলের পক্ষে পরাজয়ের ব্যবধান কমানো ছাড়া আর কী করতে পারে!

পাঞ্জাব সেটাও পারলো না ওই অরবিন্দের কারণে। তিনি ২৭ রানে তুলে নিয়েছেন ৪ উইকেট নিয়েছেন। উইকেটগুলোও যেনতেন নয়, ঋদ্ধিমান সাহা, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, ডেভিড মিলার এবং জর্জ বেইলির। ১৩.৪ ওভারে পাঞ্জাব গুটিয়ে যাওয়ার আগে ৮৮ রান তুলতে পেরেছে অক্ষর প্যাটেলের সৌজন্যে। ২১ বল খেলে ৪০ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি। স্টার্কও ৪ উইকেট নিয়েছেন মাত্র ১৫ রানে।

এর আগে ঘরের মাঠ চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে পাঞ্জাব বোলারদের উপর রীতিমতো তান্ডব চালান গেইল। ৫৭ বলে খেলেন ১১৭ রানের অতিমানবীয় ইনিংস। যেখানে চারের চেয়ে ছক্কার সংখ্যাই বেশি। ১২ ছক্কার বিপরীতে চার সাতটি। এছাড়া কোহলি ৩০ বলে ৩২, এবি ডি ভিলিয়ার্স ২৪ বলে ৪৭ রান করলে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে ২২৬ রানের বিশাল সংগ্রহ পায় বেঙ্গালুরু। এবারের আইপিএলে যা সর্বোচ্চ সংগ্রহ। ৪১ রানে ২ উইকেট নেন সন্দিপ শর্মা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ