• রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২, ১২:৪৬ অপরাহ্ন |

“প্রেসার গ্রুপ” বানাচ্ছে বিএনপি!

BNP-LOgo1428858478সিসি ডেস্ক:  শত চেষ্টা করেও আন্দোলনে সফলতা আনতে পারছে না বিএনপি। দলটির নেতাকর্মীরা মাঠে না থাকায় বার বার ‘কঠোর আন্দোলন’ ব্যর্থ হয়েছে।

এসব কারণে দল পুনর্গঠনসহ বেশ কিছু নতুন উদ্যোগ নিতে যাচ্ছেন দলটির প্রধান বেগম খালেদা জিয়া। দল পুনর্গঠনের পাশাপাশি দলীয় কমিটির বাইরে ‘প্রেসার গ্রুপ’ তৈরির প্রাথমিক সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এই ‘প্রেসার গ্রুপে’ নিয়ে যে কমিটি হবে সেখানে দেশের সুশীল সমাজ ও পেশাজীবীরা থাকবেন। এটি সরাসরি খালেদা জিয়া দেখভাল করবেন। এর সমন্বয়ের দায়িত্বে থাকবেন দলের একজন স্থায়ী কমিটির সদস্য। বিএনপির দায়িত্বশীল সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

সূত্র জানায়, ইতোমধ্যে খালেদা জিয়া সুশীল সমাজ ও পেশাজীবীদের নাম সংগ্রহ শুরু করেছেন। বিএনপিপন্থি যেসব বুদ্ধিজীবী, সুশীল সমাজ ও পেশাজীবী আছেন তারা কমিটিতে থাকবেন। এর বাইরে যারা সরাসরি বিএনপি করেন না, কিন্তু সরকারের সমালোচনা করেন-এমন ব্যক্তিদেরও ওই কমিটিতে রাখা হবে। বিএনপি যেখানে ব্যর্থ হবে সুশীলদের কমিটি সেখানে বিএনপির পক্ষে কাজ করবে-এমন চিন্তা থেকেই এই উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে দলের এক কেন্দ্রীয় নেতা বলেন, ‘আন্দোলন ব্যর্থ হওয়ায় বিএনপি চেয়ারপারসন ব্যাপক ক্ষুব্ধ হয়েছেন। এজন্য তিনি সংগঠনকে ঢেলে সাজানোর উদ্যোগ নিয়েছেন। পাশাপাশি বিকল্প হিসেবে ‘প্রেসার গ্রুপ’ বানাতে চাইছেন। যারা সরকারকে বিভিন্ন ইস্যুতে চাপ দিতে পারবে।’

দলের বেশ কয়েকজন নীতিনির্ধারণী সদস্য জানান, ‘এখন আন্দোলন নয়, দলকে পুনর্গঠনের বিষয়টি নিয়েই ভাবছে বিএনপি। আর এ জন্য যা যা করার তাই করা হবে। আর বর্তমান পরিস্থিতিতে সরকার শুধু দলীয়ভাবে মোকাবেলা করলেও হবে না। বিভিন্ন দিক থেকে ‘চাপ’ দেয়ার ব্যবস্থা করতে হবে। সেই চিন্তা থেকেই পেশাজীবী, সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সমন্বয় করে একটি কমিটি গঠনের উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে।’

এসব বিষয়ে জানতে চাইলে বিএনপি স্থায়ী কমিটির সদস্য আ স ম হান্নান শাহ বলেন, ‘আসলে প্রেসার গ্রুপ আগেও ছিল। এখনও আছে। তবে বিষয়টি এখন পরিকল্পিতভাবে করা হতে পারে। বিষয়টি চেয়ারপারসনের উপরই নির্ভর করছে।’

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘প্রেসার গ্রুপ তো আওয়ামী লীগেও আছে। সুতরাং এটা তো কোনো সমস্যা নয়।’

দলীয় নেতাকর্মীদের চেয়ে বিএনপি চেয়ারপারসন এখন দলীয় মনভাবাপন্ন পেশাজীবী নেতাদের উপরই বেশি নির্ভর করছেন। যার প্রমাণ গত সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দেখা গেছে। দলের বেশির ভাগ নেতাকর্মী নির্বাচনে যেতে না চাইলেও বিএনপিপন্থি বুদ্ধিজীবী এমাজউদ্দিন আহমেদসহ পেশাজীবীদের পরামর্শে আদর্শ ঢাকা আন্দোলনের ব্যানারে নির্বাচনে যায় বিএনপি।

আদর্শ ঢাকা আন্দোলনের নেতারা নির্বাচনে ভাল ভূমিকা পালন করলেও সরকারের একতরফা সিদ্ধান্তে বিএনপি নির্বাচন বর্জন করে। এরপরও রাজনৈতিকভাবে বিএনপি সিটি নির্বাচনে লাভবান হয়েছে বলে দলটির অধিকাংশ নেতাই মনে করছেন।

এসব কারণে বিএনপি চেয়ারপারসন পেশাজীবীদের এই গ্রুপটিকে আরও বেশি সংগঠিত করতে চাইছেন। এর অংশ হিসেবেই তালিকা সংগ্রহ করে কমিটি আকারে এই সংগঠনটিকে প্রস্তুত করছেন তিনি।

উৎস: ঢাকাটাইমস


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ