• শনিবার, ২০ অগাস্ট ২০২২, ০৮:০৮ পূর্বাহ্ন |

র‌্যাবকে দিয়ে আমার বাবাকে ধরিয়ে দিয়েছে

Press Conf. Picমাহবুবুল হক খান, দিনাজপুর : দিনাজপুর সদর উপজেলার তাজপুর গ্রামে পারিবাকি বিষয়ে ঝগড়া ও পূর্বশত্রুার জের ধরে ভাতিজার ঘরে পিস্তল ঢুকিয়ে দিয়ে র‌্যাবকে দিয়ে ধরিয়ে দিয়েছে মর্মে অভিযোগ করেছে আটক মো. নুরুজ্জামানের মেয়ে কেয়া আক্তার।
বুধবার (২০ মে) দুপুরে দিনাজপুর প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে আটক মো. নুরুজ্জামানের মেয়ে কেয়া আক্তার বলেন, আমার বাবার চাচা নুর উদ্দিন ও তার দুই ছেলের সাথে পারিবারিক বিষয়ে ঝগড়া হয়। এই ঝগড়া জের ধরে গত ১৯-০৫-২০১৫ তারিখ সোমবার বেলা দ্ইুটার দিকে আমার বাবার প্রতি প্রতিশোধ নিতে নুর উদ্দিনের ছেলে জিয়ারুল রহমান, তার ভাই জাকিরুল ইসলাম ও প্রতিবেশী মতিউর রহমানের ছেলে রশিদুল ইসলাম নামে ৩ ব্যক্তি আমাদের ঘরের জানালা দিয়ে ঘরের ভিতর বালিশের নিচে পিস্তল ঢুকিয়ে দেয়। এ দৃশ্য দেখতে পেয়ে আমি চিৎকার করে আমার মা’কে ডেকে আনি এবং পিস্তলটি জানালা দিয়ে বের করে দেই। চিৎকার শুনে জিয়ারুল রহমান, জাকিরুল ইসলাম ও রশিদুলের সাথে থাকা দুই র‌্যাব সদস্যসহ তারা আমাকে ধরে মারধর করে এবং আমার দুইকানে পিস্তল ঠেকিয়ে দিয়ে এটি আমার বাবা পিস্তল এ কথা স্বীকার করতে বলে। তারা আমাকে ধরে ঘরের ভিতর নিয়ে আটকে রাখে। তারা র‌্যাব সদস্যদের সাথে নিয়ে আমাদের ঘরে প্রবেশ করে ঘরের জিনিসপত্র তছনছ করে দেয়। আমার মা রাবেয়া ও পাড়ার লোকজনকে বাড়ীতে প্রবেশ করতে দেয়নি। এ সুযোগে আমাকে একা পেয়ে র‌্যাবের সদস্যরা আমাকে নির্যাতন করে। র‌্যাবের সদস্যরা বলে একে বাইরে যেতে দিলে অফিসারকে সবকিছু বলে দিবে। তারা আমার বাবাকে মারধর করে আটক করে নিয়ে যায়।
সংবাদ সম্মেলনে এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে সংশিষ্টদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়ার দাবী জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে আটক নুরুজ্জমানের স্ত্রী রাবেয়া, প্রতিবেশী তমিজ উদ্দিন, হোসনে আরা, সাহেরা, জুলেখা, দিলারা, সুফিয়া, শাহানাজ, হালিমা, তাহমিনা, ইয়াসমিন, রশিদা, নুরেফা, রিপা, বিউটি, লাভলী, মেরিনা, নািির্গসসহ ২৫/৩০ জন নারী-পুরুষ উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ