• রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০৯:৪৮ অপরাহ্ন |

খুন করে পালিয়ে যাওয়ার সময় দুই তরুণীসহ আটক ৩

116784_1রাঙামাটি: রাঙামাটি শহরের একটি আবাসিক হোটেল থেকে লিটু (৩৫) নামের এক গার্মেন্টস ঝুট ব্যবসায়ীকে খুন করে পালিয়ে যাওয়ার সময় পুলিশের হাতে আটক হয়েছেন দুই তরুণীসহ তিনজন।

শুক্রবার দুপুরে কলেজ গেইট এলাকায় জর্জ নামের ওই হোটেলের একটি কক্ষ থেকে লিটুর রক্তাক্ত লাশটি উদ্ধার করা হয়।

আটকরা হলেন লিটুর বন্ধু শাওন এবং শাওনের স্ত্রী শায়রা হক মৌ ও শ্যালিকা ফরিদা হক পদ্মা। এ তিন জনের বাড়ি কুমিল্লা শহরের রেসকোর্স এলাকায়।

নিহত লিটু চট্টগ্রামের হালিশহরের গ্রীনভিউ আবাসিক এলাকার বাসিন্দা। লিটু শাওনের ব্যবসায়িক অংশীদার বলে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

রাঙামাটি কোতোয়ালি থানার ওসি আব্দুল রশিদ জানান, বৃহস্পতিবার রাত নয়টার দিকে প্রাইভেটকারে আসা দুই তরুণীসহ চারজন শহরের কলেজগেইট এলাকার জর্জ আবাসিক হোটেলের রুম ভাড়া নেয়। শুক্রবার সকালে প্রাইভেটকারে করে তিনজন চলে যাওয়ার সময় বনরূপা এলাকায় গাড়িটি পাশের ফুটপাতে একাধিকবার ধাক্কা খায়। এ সময় পুলিশ গাড়িটি আটক করে। কথাবার্তা বলে পুলিশ গাড়িটি ছেড়ে দিতে চাইলেও এরই মধ্যে খবর আসে জর্জ আবাসিক হোটেলে একজন খুন হয়েছে। আর তার সঙ্গে আসা তিনজন প্রাইভেটকারে করেই বের হয়ে গেছে। এ সময় পুলিশ গাড়িসহ তিনজনকে আটক করে।

পরে আটকদের ঘটনাস্থলে নিয়ে গেলে হোটেলের লোকজন তাদের শনাক্ত করে।

তিনি আরো জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে খুনের সঙ্গে জড়িত থাকার ব্যাপারে শাওন স্বীকার করেছে। শাওন নিহত লিটুর ব্যবসায়িক পার্টনার। শাওনসহ আটকদের জেলহাজতে রাখা হয়েছে।

লাশ ময়নাতদন্তের জন্য রাঙ্গামাটি জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহতের পরিবারকে খবর দেওয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।


আপনার মতামত লিখুন :

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ