• বৃহস্পতিবার, ১১ অগাস্ট ২০২২, ০১:৪৯ পূর্বাহ্ন |

রংপুরে একসঙ্গে ৫ শিশুর জন্ম : ৩ জনের মৃত্যু

rmc-5-child-lrg20160419182406সিসি নিউজ: রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে একসঙ্গে জন্ম নেয়া পাঁচ শিশুর মধ্যে তিনজন মারা গেছে। বৃহস্পতিবার ভোরে একজন এবং বিকেলে আরো দুইজনের মৃত্যু হয়। মঙ্গলবার রাতে গাইবান্ধার সাদুল্লাপুর উপজেলার কিশামত শেরপুর গ্রামের গৃহবধূ আরজিনা বেগম এক সঙ্গে তিন মেয়ে ও দুই ছেলে সন্তানের জন্ম দেন।
বিয়ের ১২ বছর পর দীর্ঘদিনের বন্ধ্যাত্ব ঘুচিয়ে একসঙ্গে পাঁচ সন্তানের জন্মদানের ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। তবে চেষ্টা করেও বাঁচানো গেলো না দুই মেয়ে ও এক ছেলেকে।
হাসপাতালের সহকারী রেজিস্টার ডা. আজমেরী আহমেদ তিন শিশুর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, জন্মগতভাবেই একটি শিশু দুর্বল ছিল। সে সকালে মারা যায়। এছাড়া ফুসফুসজনিত কারণে বিকেলে আরো দুই শিশুর মৃত্যু হয়। তবে মা আরজিনাসহ অপর দুই শিশু সুস্থ রয়েছেন বলেও তিনি জানান।
হাসপাতাল ও পরিবারিক সূত্রে জানা যায়, আরজিনা বেগমের সঙ্গে একই এলাকার শেরেগুল ইসলামের (৩৫) বিয়ে হয় প্রায় ১২ বছর আগে। বিয়ের পর থেকে দীর্ঘদিন তাদের সন্তান না হওয়ায় শ্বশুর বাড়ির লোকজনের কাছে নানা রকম কটূক্তি শুনতে হতো আরজিনা বেগমকে।
অবশেষে মঙ্গলবার তার প্রসব বেদনা শুরু হলে বিকেলে তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে গাইনী চিকিৎসক সিরাজুম মুনিরা ডেইজির নেতৃত্বে একদল চিকিৎসক সফল অস্ত্রোপচার করেন। জন্মলাভ করে একে একে পাঁচটি ফুটফুটে সন্তান। যার তিনটি ছেলে ও দুইটি মেয়ে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ