নীলফামারীতে আইন বাস্তবায়ন বিষয়ক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

 
 

নীলফামারী, ১৮ জুন।। জেলা পর্যায়ে ধূমপান ও তামাকজাত দ্রব্য ব্যবহার (নিয়ন্ত্রণ) আইন বাস্তবায়ন বিষয়ক প্রশিক্ষণ মঙ্গলবার (১৮জুন) নীলফামারীতে অনুষ্ঠিত হয়েছে।
জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে এর উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক(ডিসি) বেগম নাজিয়া শিরিন। এতে সভাপতিত্ব করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আজাহারুল ইসলাম।
তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন ও তামাক পণ্যের ব্যবহারের কুফল নিয়ে আলোকপাত করেন সিভিল সার্জন রণজিৎ কুমার বর্মণ, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট খন্দকার আবু নাহিদ, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর নীলফামারীর উপ-পরিচালক আবুল কাশেম আযাদ, সমাজ সেবা অধিদপ্তর নীলফামারীর উপ-পরিচালক ইমাম হাসিম।
এতে ‘ধূমপান ও তামাকজাত দ্রব্য ব্যবহার(নিয়ন্ত্রণ) আইন বাস্তবায়ন’ উপস্থাপন করেন সিভিল সার্জন অফিসের মেডিক্যাল অফিসার ডাঃ আবু হেনা মোস্তফা কামাল।
প্রশিক্ষণে জানানো হয়, আমাদের দেশে প্রাপ্ত বয়স্ক পুুরুষদের সাড়ে ২৫ভাগ এবং নারীদের পৌনে দশ ভাগ মৃত্যুর কারণ তামাক। যা উন্নয়নশীল যে কোন দেশে তামাকজনিত গড় মৃত্যুর চাইতে বেশি।
এও জানানো হয় তামাক সেবনকারী যদি তামাকের শতকরা ৬৯ভাগ অর্থে খাদ্য ক্রয় করে তবে অপুষ্টিজনিত মৃত্যু অর্ধেক কমানো সম্ভব।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক নাজিয়া শিরিন বলেন, ২০৪১সালের মধ্যে তামাক মুক্ত বাংলাদেশ গড়ার অভিষ্ট লক্ষ্য নির্ধারণ করা রয়েছে।
যার কারণে জনসচেতনা সৃষ্টির মাধ্যমে তামাক চাষ পরিহার এবং ধুমপান পরিহারে আমাদের সবাইকে কাজ করতে হবে।
ধূমপানের বিজ্ঞাপন প্রচার বন্ধে নীলফামারী ব্যতিক্রম উল্লেখ করে তিনি বলেন, ইতোমধ্যে নীলফামারীকে ধুমপান বিজ্ঞাপন প্রচার মুক্ত করা হয়েছে।
বিভিন্ন দফতরের প্রধানসহ ৫০জন অংশগ্রহণ করেন এই প্রশিক্ষণে।
জেলা প্রশাসনের আয়োজনে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান মন্ত্রনালয়ের জাতীয় তামাক নিয়ন্ত্রণ সেলের সহযোগীতায় এই প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়।

Print Friendly, PDF & Email

 
 
 
 
 
 
 
 

error: Content is protected !!