• শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২:৩৪ পূর্বাহ্ন |

সৈয়দপুর সার্কেল: ছেলেধরা সন্দেহে গনপিটুনী দেয়া ফৌজদারী অপরাধ

সিসি নিউজ, ২৬ জুলাই ।। সৈয়দপুর শহরে ও পল্লীতে অপরিচিত লোকজনকে ঘুরাফিরা দেখে ছেলেধরা সন্দেহে গনপিটুনি দিয়ে পুলিশের তুলে দিয়েছে এলাকাবাসী। গত এক সপ্তাহে সৈয়দপুর থানা পুলিশের হাতে এমন ৮ ব্যক্তিকে তুলে দিয়েছে। তারা সকলেই মানসিক রোগী বলে জানিয়েছে পুলিশ। এদের বাড়ি নীলফামারী, দিনাজপুর ও বরিশালে।

তবে অভিভাবকরা এটি নিছক গুজব বলে উড়িয়ে দিচ্ছে। তারা জানিয়েছে, এখন সন্তানের জন্য ভয় পাচ্ছেনা, ভয় হচ্ছে নিজেরদেরকে নিয়ে। দেশকে অস্থিতিশীল করার জন্য ৩য় পক্ষ ছেলেধরার গুজব ছড়িয়ে নিরীহ মানুষকে পিটিয়ে হত্যা করার কৌশল করছে।
সানফ্লাওয়ার স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ মোকলেছুর রহমান জুয়েল জানান, প্রতিষ্ঠানগুলোতে শিক্ষার্থীর অনুপস্থিতি কমেনি, তবে অভিভাবকদের উপস্থিতিতি বেড়েছে। ছেলেধরা যে একটা গুজব- আমরা তা শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টিতে কাজ করছি।
অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সৈয়দপুর সার্কেল) অশোক কুমার পাল জানান, যদি কাউকে ছেলেধরা সন্দেহে গনপিটুনি দেয়া হয় তাহলে তাদের বিরুদ্ধে ফৌজদারী অপরাধ করার দায়ে ফৌজদারী মামলা করা হবে।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন:

(ভিডিওটি ইনডিপেনডেন্ট টেলিভিশনের নীলফামারী জেলা প্রতিনিধির সৌজন‌্যে)


আপনার মতামত লিখুন :

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Red Chilli Saidpur

আর্কাইভ