ক্ষতিগ্রস্থ ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটির কাউন্সিল ও সমাবেশ

 
 

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর), ১৩ অক্টোবর।। দিনাজপুরের পার্বতীপুর উপজেলার বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি এলাকার ক্ষতিগ্রস্থ ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটির কাউন্সিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।
গত শুক্রবার বিকাল ৫টায় বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির দক্ষিন গেট সংলগ্ন চত্তরে মৌপুকুর বেলপুকুর এলাকায় এই কাউন্সিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। কাউন্সিলে ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটির আহবায়ক বেনজির আহম্মেদকে সভাপতি ও সদস্য সচিব হাজি আইনুল হককে সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত করে ৫১ সদস্য কমিটি গঠন করা হয়। কমিটির প্রধান উপদেষ্ঠা হিসেবে নির্বাচিত হয় ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটির প্রতিষ্ঠাতা আহবায়ক মোঃ মশিউর রহমান বুলবুল।
সমাবেশে ফুলবাড়ী সরকারী কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ ও ক্ষতিগ্রস্থ মহেশপুর গ্রাম কমিটির সভাপতি আব্দুল গফুরের সভাপতিত্বে, বক্তব্য রাখেন,কমিটির প্রধান উপদেষ্ঠা ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটির প্রতিষ্ঠাতা আহবায়ক মোঃ মশিউর রহমান বুলবুল।

অনান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, ক্ষতিগ্রস্থ গ্রাম কমিটির সভাপতি মতিয়ার রহমান, সম্বনয় কমিটির অন্যতম সদস্য মামুনুর রশিদ, ক্ষতিগ্রস্থ গ্রাম কমিটির সভাপতি ও সাবেক ইউপি সদস্য সাইদুর রহমান, সাবেক পুলিশ কর্মকর্তা নুরল হক প্রমুখ।
২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটির প্রধান উপদেষ্ঠা মশিউর রহমান বুরবুর বলেন, বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির কারনে যখন একের পর এক গ্রাম ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছিল। গ্রামবাসীরা তখন দিশে হারা হয়ে পড়েছিল, সেই সময় ক্ষতিগ্রস্থ গ্রামবাসীদের দাবী আদায়ের লক্ষে ২০১৬ সালের নভেম্বর মাসে ক্ষতিগ্রস্থ গ্রামবাসীদের সাথে নিয়ে গঠিত হয় এই ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটি। তিনি বলেন, এই ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটির আন্দোলনের মাধ্যমে, খনি গর্ভে হারিয়ে যাওয়া বড়পুকুরিয়া ঐতিহ্যবাহী ঈদ গাহ মাঠ পুনঃনির্মান, রাস্তা ঘাটের উন্নয়ন ও ফাঁটল ধরা ঘর-বাড়ীর কিছু ক্ষতিপুরন আদায় করা হয়েছে। আগামী দিনেও এলাকাবাসীদের সাথে নিয়ে ২০ গ্রাম সম্বনয় কমিটি তাদের দায়িত্ব সঠিক ভাবে পালন করে যাবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। সম্মেলনে এলাকার প্রায় ২ হাজার গ্রামবাসি ও নেতাকর্মী উপস্থিতি ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email