• রবিবার, ২৯ মার্চ ২০২০, ০৭:১০ অপরাহ্ন |

ভারতে ফেলানী হত্যা মামলার শুনানি শুরু

Red Chilli Saidpur

সিসি ডেস্ক।। ফেলানী হত্যা মামলার পুনঃবিচার এবং ক্ষতিপূরণের দাবিতে ভারত সুপ্রিম কোর্টে আনীত রিটের শুনানি শুরু হয়েছে। শুক্রবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) সকালে বিচারপতি ড. ডি ওয়াই চন্দ্রচাদ এবং বিচারপতি কে এম জোসেফের যৌথ বেঞ্চে শুনানি শুরু হয়।

শুনানিতে রিটের পক্ষে অংশগ্রহণ করেন অ্যাডভোকেট বিজন ঘোষ ও অ্যাডভোকেট অপর্ণা ভাট। আর প্রতিপক্ষ ভারত ইউনিয়ন ও অন্যান্যদের পক্ষে অংশ নেন অ্যাভোকেট ডি মোহনা।

কিছু সময় শুনানি চলার পর অধিকতর শুনানীর জন্য পরবর্তী দিন আগামী ১৮ মার্চ ধার্য করে আদেশ দিয়েছেন যৌথ বেঞ্চ।

২০১১ সালের ৭ জানুয়ারি ভোরে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার অনন্তপুর সীমান্তে কাঁটাতারের বেড়া পার হয়ে ভারত থেকে দেশে ফেরার সময় ১৪ বছর বয়সী কিশোরী ফেলানীকে পাখির মতো গুলি করে হত্যা করেছিল বিএসএফ সদস্য অমিয় ঘোষ। তার লাশ কাঁটাতারের বেড়ায় ঝুলেছিল ৫ ঘন্টা। ঘটনার ৩০ ঘন্টা পর বিএসএফ লাশ ফেরত দিলে নাগেশ্বরী উপজেলার কলোনীটারী গ্রামের বাড়িতে দাফন করা হয়েছিল।

ওই দিন ভারতের ১৮১ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের অধিনস্ত চৌধুরীহাট বিওপির কোম্পানী কমান্ডারের এফআইআর-এর ভিত্তিতে ভারতের কুচবিহার জেলার দিনহাটা থানায় একটি জিডি এন্ট্রি করা হয় ( জিডি নং-৩৪৯)। পরে এরই ভিত্তিতে ওই দিন একটি ইউডি মামলা রেকর্ড করা হয় ( মামলা নম্বর-৫/১১)।


আপনার মতামত লিখুন :

মন্তব্য বন্ধ আছে।

আর্কাইভ