• শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১০:৪৮ অপরাহ্ন |

সৈয়দপুরে ‘পাশে আছি’ এর ব্যতিক্রমধর্মী উদ্যোগ ‘মানবতার দেয়াল’

Red Chilli Saidpur

সিসি নিউজ, ৫এপ্রিল ।। করোনা ভাইরাস পরিস্থিতিতে কর্মহীন অসহায় দুস্থ মানুষকে খাদ্য সামগ্রী  দিয়ে সহায়তা দিতে এক ব্যতিক্রমধর্মী  উদ্যোগ গ্রহন করেছে নীলফামারীর সৈয়দপুরে নিয়ামতপুর মুন্সিপাড়ার স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন “পাশে আছি”। এ সংগঠনটির সদস্যরা এবার “মানবতার দেয়াল” চালু করে খাদ্য-সামগ্রী বিতরণের ব্যবস্থা করেন। “পাশে আছি, পাশে চাই” শ্লোগান নিয়ে সংগঠন কর্তৃক  চালু করা মানবতার দেয়াল উদ্যোগটি এলাকায় ব্যাপকভাবে প্রশংসিত হয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসকে সামনে রেখে নীলফামারীরসৈয়দপুরে সম্প্রতি আত্মপ্রকাশ ঘটে “পাশে আছি” নামের একটি সামাজিক সংগঠনের। শহরের নিয়ামতপুর মুন্সিপাড়াস্থ এ সামাজিক সংগঠনের উদ্যোগে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে ও জনসচেতনতায় এলাকার বিভিন্ন সামাজিক কর্মকান্ড পরিচালনা করা হয় ইতিমধ্যে। এ সবের মধ্যে রয়েছে করোনা ভাইরাস রোধে মানুষের সচেতন তা সৃষ্টিতে লিফলেট ও মাস্ক বিতরণ, এলাকায়  রাস্তায় জীবাণুনাশক পানি স্প্রে, পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা এবং কর্মহীন মানুষকে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ। গত এক সপ্তাহে এ সব কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।

উল্লিখিত কর্মসূচির সঙ্গে সঙ্গে রোববার থেকে সংগঠনটির ব্যানারে আরেক ব্যতিক্রমধর্মী কর্মসূচি গ্রহন করা হয়েছে। এবার তারা এলাকার তিনটি স্থানে স্থাপন করেছে ‘মানবতার দেয়াল”।  আর এ মানবতার দেয়ালের সেলফ বানিয়ে তাতে রাখা হয়েছে খাদ্য সামগ্রী প্যাকেট। এ সব স্থাপন করা হয়  শহরের নিয়ামতপুর নিমবাগান মোড়, কনসার্ন সংলগ্ন আলীর মুদি দোকানের পাশে ও আইয়ুব আলী সরকারের বাড়ি সংলগ্ন এলাকায়।  প্রতিটি মানবতার দেয়ালে সেলফে বিভিন্ন খাদ্য সামগ্রীর ছয়টি করে প্যাকেট রাখা হয়েছে। করোনা ভাইরাসে কারণে কর্মহীন  অসহায় মানুষজন এসে তাদের প্রয়োজনে মানবতার দেয়াল থেকে খাদ্যসামগ্রী ব্যাগ তুলে নিয়ে যাচ্ছেন। এছাড়া এমনও অনেকেই আছেন জনসম্মূখে এসে সহায়তার খাদ্যসামগ্রী নিতে যাদের ইতস্থতরোধ কিংবা আত্মসম্মান ক্ষুন্ন হয় বলে মনে করেন, তাদের জন্য সেখানে মোবাইল নম্বর দেয়া আছে। মানবতার দেয়ালে থাকা মোবাইল নম্বরে কল দিলেই সংগঠনের সদস্যরা তাদের বাসা-বাড়ির ঠিকানা সংগ্রহপূর্বক বাড়ি বাড়িতে গিয়ে খাদ্য সামগ্রী প্যাকেট পৌঁচ্ছে দিচ্ছেন। সেই সঙ্গে সংগঠনটির পক্ষ থেকে এলাকার সহৃদয়বান সম্পদ ও বিত্তশালী ব্যক্তিবর্গকে তাদের এমন ব্যতিক্রমধর্মী উদ্যোগে সহযোগিতার হাত বাড়ানোর জন্য আহবান জানানো হয়েছে ।

পাশে আছি সামাজিক সংগঠনটির সভাপতি মো. শফিকুল আলম বলেন, প্রাণঘাতী ভাইরাস প্রতিরোধে  মানুষজনকে ঘরে থাকতে আহবান জানানো হয়েছে। সেই সঙ্গে জনসমাগম এড়িয়ে চলতেও বলা হচ্ছে বার বার। আর এমনও মধ্যবিত্ত পরিবার রয়েছে যারা জনসম্মূখে খাদ্য সহায়তা নিতে কিছুটা হলেও  ইতস্থতবোধ করেন। এ সব নানা দিক বিবেচনা নিয়ে আমরা এলাকার তিনটি স্থানে তিনটি মানবতার দেয়াল স্থাপন করেছি।


আপনার মতামত লিখুন :

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

আর্কাইভ